SomoyNews.TV

Somoynews.TV icon মহানগর সময়

আপডেট- ২২-০২-২০২১ ২১:১৩:৪৪

সময় টিভির ক্যামেরা দেখে পালালেন বিপিডিএ’র মহাসচিব

rng-bpda-cheat-265051

২৬ দিনে ভুয়া ডাক্তার তৈরির কারখানা বিপিডিএ’র সভাপতি ডা. আরএম রনী এবং অভিযুক্ত মহাসচিব রাকিবুল আলম তুহিন পাল্টাপাল্টি সংবাদ সম্মেলন করেছেন। প্রশাসনের চোখ এড়িয়ে ঘোষিত সময়ের কয়েক ঘণ্টা পর অভিযুক্ত মহাসচিব হঠাৎ উপস্থিত হয়ে কয়েকজন সাংবাদিকের উপস্থিতিতে সংবাদ সম্মেলন শুরু করলেও সময় টিভির ক্যামেরা দেখে পালিয়ে গোপন কক্ষে অবস্থান নেন।

জানা যায়, অনুমোদনহীন অবৈধ সংগঠন বাংলাদেশ প্যারামেডিক ডাক্তার অ্যাসোসিয়েশন বিপিডিএ’র বিরুদ্ধে ২৬ দিনের প্রশিক্ষণে দেশব্যাপী সার্টিফিকেট বাণিজ্যের সংবাদ প্রচারিত হওয়ার পর গা ঢাকা দেয় এর কর্মকর্তারা।

সোমবার (২২ ফেব্রুয়ারি) বেলা ১১টার সময় রংপুরের সার্কিট হাউস রোডের কার্যালয়ে হঠাৎ করেই সাংবাদিক সম্মেলনের ডাক দেয় দু’পক্ষ। প্রশাসনের তৎপরতায় অবৈধ এই সংগঠনটি জাতে কোনো কার্যক্রম চালাতে না পারে সেজন্য সিটি এসবির কর্মকর্তারা নির্ধারিত সময়ে উপস্থিত থাকায় কোনোপক্ষই সেখানে যাননি।

দেড়টার দিকে সেখানে উপস্থিত সাংবাদিকদের কাছে মহাসচিব তুহিনের বিরুদ্ধে প্রতারণা-জ্বালিয়াতি ও সংগঠনের নামে কোটি কোটি টাকা লোপাটের অভিযোগ তোলেন। এবং রেজিষ্ট্রেশন ছাড়া সংগঠনটি যাতে না চলে সে জন্য সরকারের সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ দাবি করেন। এ সময় বেশকিছু প্রতারিত ও ভুক্তভোগী মহাসচিব তুহিনের বিরুদ্ধ বিভিন্ন তথ্য উপস্থাপন করেন।

তারা বলেন, বিভিন্ন প্রকার প্রতারণা করে তাদের কাছ থেকে অর্থ হাতিয়ে নিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি। ১১টায় সংবাদ সম্মেলন ডাকলেও দুপুর সাড়ে ১২টা পর্যন্ত দু’পক্ষের কেউ সেখানে উপস্থিত হননি। কয়েকজন সদস্য ও উপস্থিত সাংবাদিক থাকলেও সংবাদ সম্মেলন আহ্বানকারী দুজনের কারও দেখা পাননি। তবে বেলা ১টার দিকে রংপুর সার্কিট হাউজ লেনের বিপিডিএ কার্যালয়ে এসে তুহিনের বিরুদ্ধে পাল্টা সংবাদ সম্মেলন করেন ডা. আরএম রনী।

তিনি সম্পূর্ণ অবৈধভাবে অনুমোদনহীন সংগঠন ও এর সদস্যদের ব্যবহার করে সারাদেশ থেকে মহাসচিব তুহিনের কোটি কোটি টাকা প্রতারণার ফিরিস্তি তুলে ধরেন। এ সময় বিভিন্ন জেলা উপজেলা থেকে প্রতারিত ও ভুক্তভোগী বেশকিছু সদস্য সেখানে উপস্থিত হয়ে ভুয়া এই প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে প্রতারিত হওয়ার বর্ননা দেন। তবে এত বছর মানুষ ঠকিয়ে এখন টাকা ভাগাভাগি নিয়ে মতবিরোধে তুহিনের বিরুদ্ধে মাঠে নেমেছেন কি না সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের সদুত্তর দিতে পারেননি সংগঠনটির সভাপতি দাবিদার ডা. রনি।

এদিকে বেলা ১১টার দিকে বিপিডিএ কার্যালয়ে একটি সংবাদ সম্মেলন আহ্বান করলেও উপস্থিত হননি মহাসচিব রাকিবুল আলম তুহিন। প্রশাসনের লোকজন চলে যাবার পর হঠাৎ বেলা ৩টার দিকে বিপিডিএ ভবনে উপস্থিত হয়ে কয়েকজন সাংবাদিককে ডেকে সংবাদ সম্মেলন শুরু করেন অভিযুক্ত মহাসচিব রাকিবুল আলম তুহিন।

সম্প্রতি সময় টেলিভিশনে তার ২৬ দিনের ট্রেনিং-এ ভুয়া ডাক্তারি সার্টিফিকেটের ব্যবসা সংক্রান্ত একটি অনুসন্ধানী প্রতিবেদনকে মিথ্যা এবং তার সংগঠনের সভাপতির সঙ্গে যোগসাজোসী দাবি করেন এবং সাংবাদিকের বিরুদ্ধে ৬৪টি জেলা থেকে মামলা করার হুমকি দেন। কিন্তু ওই সময় সময় সংবাদের ক্যামেরা দেখে চেয়ার থেকে উঠে দ্রুত পালিয়ে যান তুহিন। পাশের একটি ঘরে আশ্রয় নিয়ে মানসিকভাবে বিপর্যস্ত দাবি করে কথা না বলেই সটকে পড়েন।

অনুসন্ধানে জানা যায়, ২০১৮ সালে বিপিডিএ নামে অনুমোদনহীন ভুয়া এই প্রতিষ্ঠান খুলে ১২০০ লোককে ট্রেনিং দিয়ে ভুয়া সার্টিফিকেট বাণিজ্যের অভিযোগ উঠলে প্রশাসন এটি সিলগালা করে দেয়। কিছুদিন গা-ডাকা দিয়ে থাকার পর সারা দেশে ১২ হাজার মানুষকে ২৬ দিনের ট্রেনিং দিয়ে ১০ হাজার ১০০ টাকা করে হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগ তুলে মহাসচিব তুহিনের বিরুদ্ধে মাঠে নেমেছে সভাপতিসহ সংগঠনের সদস্যরা। সভাপতি ও তার সমর্থকদের দাবি সংগঠনের অন্তত ১৩ কোটি টাকা তুহিন তার স্ত্রীর নামে পূবালী ব্যাংকের রংপুরস্থ মহিলা শাখায় জমা করে। বিগত দুই বছরের টাকার কোন হিসাব চাইলে সদস্যদের বহিষ্কার করাসহ নানা হয়রানি করেন বলে অভিযোগ অনেকের।

এদিকে জেলা প্রশাসক আসিব আহসান এ ধরণের কার্যক্রমকে জনস্বাস্থ্যের জন্য হুমকি উল্লেখ করে বলেন এর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে। সিভিল সার্জন হিরম্ব কুমার রায় এই প্রতিষ্ঠানটির কার্যক্রমকে প্রতারণা উল্লেখ করে দ্রুত পদক্ষেপ নেয়ার আশ্বাস দিয়েছেন।