SomoyNews.TV

Somoynews.TV icon বাণিজ্য সময়

আপডেট- ০১-১২-২০২০ ১৯:৪০:৪৪

ব্রিটেনের সামনে আরও একটি ধাক্কা

880

ব্রিটেন এক্সিট বা ব্রেক্সিট বাস্তবায়ন শুরু হয়েছে এরই মধ্যে। ইউরোপীয় ইউনিয়ন থেকে আনুষ্ঠানিক কোনো চুক্তি ছাড়াই বেরিয়ে যাচ্ছে ব্রিটেন। আর মাত্র ৩০ দিন বাকি। কিন্তু ২০২০ সাল যে অনেক কিছু কেড়ে নিয়েছে পৃথিবীর কাছ থেকে। সেই কেড়ে নেওয়ার হারে ব্রিটেনের অর্থনীতিও ব্যাপকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। সব দেশই যখন কোভিড-১৯ এর ধাক্কা সামাল দিতে গিয়ে হিমশিম খাচ্ছে, তখন ব্রিটেনের সামনে আরও একটি ধাক্কা। সেটি ব্রেক্সিটের।

বর্তমানে আয় কমেছে ব্রিটেনের। কমেছে বললে ভুল হবে অবশ্য। কারণ আয় বৃদ্ধির দিক থেকে নিজেদের ইতিহাসের অন্যতম খারাপ সময় এটি।

এদিকে যে অর্থনৈতিক সাহায্য দেওয়া হচ্ছে, সেটি বাড়ানোর জন্য এরই মধ্যে বেশ চাপের মুখে রয়েছে ব্রিটিশ সরকার। এটা সামনে এসেছে যে পারিবারিক নিষ্পত্তিযোগ্য আয় ২০১৯ থেকে ২০২৪ সালের মধ্যে কেবল ২২০ পাউন্ড বাড়তে যাচ্ছে। বর্তমান সংসদের প্রত্যাশিত সময়কালে সেটি কেবল ১ শতাংশ উত্থিত হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

সরকারি পরিসংখ্যানের ভিত্তিতে রেজুলেশন ফাউন্ডেশন বিশ্লেষকরা আলো ফেলেছেন মহামারির কারণে অর্থনৈতিক ক্ষয়ক্ষতির পারিবারিক অর্থনীতির ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণের ওপর। যেখানে দেখা গেছে, ১৯৫৫ সাল থেকে (যখন থেকে রেকর্ড রাখা শুরু হয়েছে) আয় বৃদ্ধির দিক থেকে এটি দ্বিতীয় বাজে সংসদ। এর আগে ২০১৫-১৭ সালের সংসদে এক বছরে শূন্য দশমিক ১ শতাংশ কমে যায়, যা এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বাজে রেকর্ড হিসেবে স্বীকৃত।

আগামী ২০২১ সালের মাঝামাঝি সময় পর্যন্ত বেকারত্ব ২৬ লাখের চূড়া স্পর্শ করতে যাচ্ছে এবং মহামারি শেষ হওয়ার পরও এটি দীর্ঘ সময় ধরে বজায় থাকবে। তারা সতর্কবার্তা দিয়ে আরও বলেছে, এপ্রিলে সর্বজনীন ক্রেডিট ও কর ক্রেডিট কেটে নেওয়ার যে পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে, তার ফলে এক বছরে ৬০ লাখ পরিবার ১ হাজার পাউন্ডের বেশি হারাবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।