SomoyNews.TV

Somoynews.TV icon বাংলার সময়

আপডেট- ২৩-১০-২০১৯ ০৯:২৫:২৪

প্রেমিকাকে ডেকে নিয়ে ৪ বন্ধু মিলে ধর্ষণ

women

লক্ষ্মীপুর রামগঞ্জ উপজেলায় কিশোরীকে ডেকে নিয়ে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের অভিযোগে তিন যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার (২২ অক্টোবর) সকালে উপজেলার ভাদুর ইউনিয়নের পশ্চিম ভাদুর গ্রামে অভিযান চালিয়ে ইমন, রাসেল ও শরীফকে গ্রেফতার করা হয়। তারা তিনজনই একই ইউনিয়নের পশ্চিম ভাদুর গ্রামের বাসিন্দা। ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত মূল আসামি শাওন পলাতক রয়েছে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, ওই কিশোরীর বাবা-মা কয়েক বছর আগে পৃথক বিয়ে করে অন্যত্র চলে যায়। বাড়িতে কিশোরী একাই বসবাস করতো। এ সুযোগে কিছুদিন আগে ভাদুর ইউনিয়নের পশ্চিম ভাদুর গ্রামের মো. ইব্রাহিমের ছেলে শাওন ওই কিশোরীর সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলে। গত সোমবার রাতে বিয়ের প্রলোভনে কিশোরীকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে শাওন পশ্চিম ভাদুর গ্রামে তার বন্ধু ইমনের বাড়িতে নিয়ে যায়। পরে ওই বাড়িতে আরও তিন বন্ধুসহ মোট চারজন মিলে রাতভর কিশোরীকে ধর্ষণ করে। এতে গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়ে কিশোরী।

সকালে খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে গণধর্ষণের শিকার ওই কিশোরীকে মুমূর্ষু অবস্থায় উদ্ধার করে লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করে।

লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. মো. আনোয়ার হোসেন জানান, ধর্ষণের শিকার কিশোরীকে মুমূর্ষু অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এ ঘটনায় কিশোরীর বাবা বাদী হয়ে শাওন, ইমন, রাসেল ও শরীফের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা করেছেন।

রামগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ার হোসেন জানান, কিশোরীকে গণধর্ষণের ঘটনায় অভিযুক্ত তিন ধর্ষককে গ্রেফতার করা হয়েছে। অভিযুক্ত শাওনকে গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।