SomoyNews.TV

ভ্রমণ

আপডেট- ২৭-০৩-২০১৯ ১১:২০:১৮

নানা প্রতিবন্ধকতার মুখে নৌ পর্যটন

untitled-5-copy

বিপুল আয়ের সম্ভাবনা থাকা সত্ত্বেও নানা প্রতিবন্ধকতায় সমৃদ্ধ হচ্ছে না দেশের নৌ পর্যটন। ইট কাঠের যান্ত্রিক নগরী ছেড়ে জলের স্পর্শেই হাফ ছেড়ে বাঁচে মানুষ। ভ্রমণে বা প্রয়োজনে খুব কম সময়ই নদীর বুকে চলাফেরার সুযোগ হয় দেশের বেশীরভাগ মানুষের। তবুও বাস্তবতার প্রয়োজনে আরামদায়ক এই পথকে আরো সহজভাবে দেখতে চাই সাধারণ মানুষ।

তারা বলেন, 'ব্যস্ত শহর থেকে খোলামেলায় আসলে ভাল লাগে খুব। এই যে নদী পথে নৌকা দেখছি, মাছ দেখছি। ভাল লাগছে। নদী পথে দুর্ঘটনা কম। সে কারণে নদী পথে যাত্রা সহজ করে দিলে আমাদের উপকারে আসবে। আমাদের নদীর পানি অনেক দূষিত। দূষণ মুক্ত করা উচিত নদীকে। '

৫ বছরের ব্যবধানে দেশে ভ্রমণকারীর সংখ্যা হয়েছে দ্বিগুণ। প্রতি বছর গড়ে দেশের ১০ভাগ মানুষকে ভ্রমণে উৎসাহিত করতে পারলে বিশাল অঙ্কের অর্থনৈতিক তৎপরতা সৃষ্টি হবে। তবে এক্ষেত্রে পর্যটকদের নিরাপত্তা, যোগাযোগ সুবিধা, আকর্ষণীয় অফার ও পর্যটন ব্যয় নাগালের মধ্যে রাখা সবচেয়ে বেশী জরুরী।

দেশি-বিদেশি টুরিস্টদের আকৃষ্ট করতে দক্ষ মানব সম্পদ তৈরিসহ নানা পরিকল্পনার কথা বলছে নৌ-পর্যটন করপোরেশন। তারা বলেন, 'শুনে খুশি হবেন আগামী ২৯ তারিখ ক্রস বর্ডার সার্ভিসের মাধ্যমে ঢাকা থেকে কলকাতা যাবে আবার কলকাতা থেকে ঢাকা আসবে লঞ্চ। বিভিন্ন ট্যুরিজম সার্ভিস এবং ইনিস্টিটিউটের মাধ্যমে দক্ষ জনবল তৈরির ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।'

নদী বাঁচলেই বাঁচবে দেশ, খুলবে নৌ পর্যটনের অপার সম্ভাবনা। দেশের জনপ্রিয় পর্যটন স্থানগুলোর সিংহভাগই নদী ও সমুদ্র বেষ্টিত হওয়ায় সবার আগে নদীকে দখল ও দূষণমুক্ত করবার পরামর্শ সংশ্লিষ্টদের।