সম্পূর্ণ নিউজ সময়
আন্তর্জাতিক সময়
৫ টা ১৮ মিঃ, ১৮ মে, ২০২১

পশ্চিমবঙ্গে মন্ত্রীসহ গ্রেফতার চারজনের জামিন নাটক, হাসপাতালে ভর্তি ২

ভারতের পশ্চিমবঙ্গের চার প্রভাবশালী রাজনীতিকের মামলা নাটকীয় মোড় নিয়েছে। সোমবার (১৭ মে) সিবিআইয়ের বিশেষ আদালতের রায়ের ওপর স্থগিতাদেশ দিয়েছেন কলকাতা হাইকোর্ট। এদিকে গ্রেপ্তার মদন ও শোভন অসুস্থ হয়ে পড়লে তাদেরকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
ওয়েব ডেস্ক

বুধবার (১৯ মে) পরবর্তী শুনানি অনুষ্ঠিত হবে। নারদা ঘুষ কেলেঙ্কারিতে মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম, সুব্রত মুখার্জি, এমএলএ মদন মিত্র ও শোভন চ্যাটার্জিকে সোমবার সকালে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল।

পরে তাদের জামিন দিয়েছিল কলকাতার ব্যাংকশাল কোর্টের সিবিআই বিশেষ আদালত। কিন্তু হাইকোর্ট সেই জামিন স্থগিত করে দিলে তাদের প্রেসিডেন্সি জেলে নেওয়া হয়।

রাত সাড়ে ৩টার দিকে মদন ও শোভন অসুস্থ হয়ে পড়েন। তাদের এসএসকেএম হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আর সুব্রতকে হাসপাতালে নেওয়া হলেও ফের জেলে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন: সকালে গ্রেপ্তার, সন্ধ্যায় জামিন তৃণমূলের চার নেতার 

আনন্দবাজারের খবরে বলা হয়, রাত সাড়ে ৩টায় মদনের শ্বাসকষ্ট শুরু হয়েছিল। তাৎক্ষণিকভাবে হাসপাতালে নেওয়া হয়। তাকে অক্সিজেন দেওয়া হয়েছে।

এর আগে বিকেল ৪টা থেকে ব্যাংকশাল কোর্টের ভার্চ্যুয়াল আদালতে মামলার শুনানি শুরু হয়। ভারতীয় দণ্ডবিধির ১০৯ ধারার মামলায় সিবিআই অভিযুক্তদের ১৪ দিনের জেল হেফাজতের আবেদন করেছিল।

কলকাতার সিবিআই দপ্তরে গিয়ে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, সঠিক প্রক্রিয়া মেনে এই চারজনকে গ্রেপ্তার করা হয়নি। এই গ্রেপ্তার বেআইনি। আমাকেও গ্রেপ্তার করতে হবে।

তৃণমূলের প্রভাবশালী মন্ত্রী-নেতাদের গ্রেপ্তারের ঘটনায় রাজ্য রাজনীতি উত্তপ্ত হয়ে উঠছে। দলের শীর্ষ নেতাদের এইভাবে গ্রেপ্তার হতে দেখে অনেকেই কোভিড-১৯ বিধি ভেঙে রাস্তায় নেমে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেছেন।

এমনকি অনেকেই কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা সিবিআইএর কলকাতার দফতর নিজাম প্যালেজের সামনে এসেও বিক্ষোভ দেখান।

© ২০২১ সময় টিভি মিডিয়া নেটওয়ার্ক
সমস্ত অধিকার সংরক্ষিত
DMCA.com Protection Status
সময় মোবাইল অ্যাপ ডাউনলোড করুন
Somoy Tv App PlayStore Somoy Tv App AppleStore
ফলো সামাজিক সময়