সম্পূর্ণ নিউজ সময়
বাংলার সময়
১২ টা ৩০ মিঃ, ১২ মে, ২০২১

নিকলীতে ৬ জন গুলিবিদ্ধের ঘটনায় মামলা, গ্রেফতার ২

কিশোরগঞ্জের নিকলীতে জলমহালের বিরোধকে কেন্দ্র প্রতিপক্ষের বাড়িতে আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ে হামলায় ৫ শিশুসহ ৬ জন গুলিবিদ্ধ হওয়ার ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে।
নূর মোহাম্মদ

বুধবার (১২ মে) জাফরাবাদ গ্রামের সাদ্দাম হোসেন আপন বাদী হয়ে অভিযুক্ত সোহেলসহ ৮ জনকে আসামি করে নিকলী থানায় মামলাটি দায়ের করেন। এতে অজ্ঞাত আরও ৪০/৫০ জনকে আসামি করা হয়। এ ঘটনায় পুলিশ জালাল উদ্দিন (৪৫) ও তার ছেলে উজ্জ্বল (২২) গ্রেফতার করেছে।

শুয়াইজানি নদীর পাটিবাঁধ এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে মঙ্গলবার (১১ মে) বিকেলে নিকলী উপজেলা সদরের ষাইটধার জাফরাবাদ গ্রামে এ হামলার ঘটনা ঘটে। স্থানীয় যুবক সোহেলের নেতৃত্বে আগ্নেয়াস্ত্রসহ হামলার ঘটনায় আকাশ (১৮), রিয়ান (৮), শ্রাবন্তি (৯), তৃষা (৮), তুহিন (৪) ও নিশা (৬) গুলিবিদ্ধ হয়।

জানা গেছে, ষাইটধার এলাকায় নদীর একটি অংশ তিন বছরের জন্য লিজ নেয় জাফরাবাদ গ্রামের সাদ্দাম হোসেন আপন। একই এলাকায় ফসল চাষের জন্য নদীর চর লিজ নেন ষাইটধার গ্রামের জনৈক নূরুল ইসলাম। অভিযোগ রয়েছে, নূরুল ইসলামের ছেলে স্থানীয় যুবলীগ নেতা সোহেল সরকারি নীতি না মেনে ওই চরে মাছ চাষের জন্য খাদ নির্মাণ শুরু করলে সাদাম এতে বাধা দেয়। এ নিয়ে মঙ্গলবার দুপুরে সোহেলের সাথে সাদ্দামের তর্কাতর্কি হয়। এক পর্যায়ে সোহেল বাড়ি থেকে আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ে সাদ্দামের বাড়িতে হামলা চালায়। এ সময় কয়েক রাউন্ড গুলি ছুঁড়ে সোহেল। এতে গুলিবিদ্ধ হয় ৫ শিশুসহ ৬ জন।

আহতদের মধ্যে আকাশ নামে এক কিশোরকে শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল এবং রিয়ান ও শ্রাবন্তি নামে দুই শিশুকে নিকলী উপজেলা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বাকিদের প্রাথমিক চিকিৎসার পর ছেড়ে দেয়া হয়। তবে গুলিবিদ্ধদের অবস্থা গুরুতর নয় বলে জানিয়েছে পুলিশ। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে হামলাকারীদের ধরতে অভিযান শুরু করে।

নিকলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শামসুল আলম সিদ্দিকী জানান, এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। পুলিশ ২ জনকে গ্রেফতার করেছে। সোহেলকে গ্রেফতার ও আগ্নেয়াস্ত্র উদ্ধারে চেষ্টা চালাচ্ছে পুলিশ।

© ২০২১ সময় টিভি মিডিয়া নেটওয়ার্ক
সমস্ত অধিকার সংরক্ষিত
DMCA.com Protection Status
সময় মোবাইল অ্যাপ ডাউনলোড করুন
Somoy Tv App PlayStore Somoy Tv App AppleStore
ফলো সামাজিক সময়