সম্পূর্ণ নিউজ সময়
আন্তর্জাতিক সময়
১১ টা ৮ মিঃ, ১২ মে, ২০২১

ভারতে ব্ল্যাক ফাঙ্গাস আতঙ্ক: মস্তিষ্ক বিকল হয়ে মৃত ২

আন্তর্জাতিক সময় ডেস্ক

করোনার মাঝে নতুন করে উদ্বেগ বাড়িয়েছে ব্ল্যাক ফাঙ্গাস। গত ২৪ ঘণ্টায় ব্ল্যাক ফাঙ্গাসের কারণে ভারতের মধ্যপ্রদেশে মৃত্যু হয়েছে দুইজনের। এই মুহূর্তে ব্ল্যাক ফাঙ্গাসের সঙ্গে লড়াই করছেন ১৩ জন।

এদিকে মহারাষ্ট্রে প্রায় দুই হাজারের বেশি ব্ল্যাক ফাঙ্গাসের রোগী রয়েছে বলে জানিয়েছেন রাজ্যটির স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

মস্তিষ্ককে একেবারে অকেজো করে দিচ্ছে এই ছত্রাক। চোখে বাসা বাঁধছে সে। বেশ কিছুক্ষেত্রে অস্ত্রোপচারের সময়টুকু দিচ্ছে না। ভারতজুড়ে এখন করোনার পাশাপাশি ব্ল্যাক ফাঙ্গাস নিয়ে আতঙ্ক বাড়ছে। করোনা এখন চেনা শত্রু হয়ে উঠলেও ব্ল্যাক ফাঙ্গাস সম্পর্কে তেমন কিছুই জানা নেই মানুষের। মহারাষ্ট্র, দিল্লি, উত্তরপ্রদেশে ও ওড়িশায় বেড়েছে ব্ল্যাক ফাঙ্গাসের প্রকোপ। মূলত, যাদের শরীরে ইমিউনিটি একেবারেই কম, তাদের শরীরেই বাসা বাঁধছে এই ছত্রাক। 

মধ্যপ্রদেশের স্বাস্থ্য বিভাগের সদস্য ভিকে পাল জানিয়েছেন, ব্ল্যাক ফাঙ্গাসের সংক্রমণ অস্বাভাবিক কিছু নয়। কোভিডের সঙ্গেও এর বিশেষ কিছু সম্পর্ক নেই। সাধারণত উচ্চ রক্তচাপ বা ডায়াবেটিস রোগীদেরই এটি আক্রমণ করে। এর সঙ্গে কোভিড সংক্রমণের যোগাযোগ নেই।   

অন্যদিকে যুক্তরাষ্ট্রের মহামরি নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধ কেন্দ্র জানিয়েছে, ব্ল্যাক ফাঙ্গাস একটি বিরল ছত্রাকের সংক্রমণ। চারপাশের পরিবেশেই বাস। বাতাস থেকে প্রশ্বাসের মাধ্যমে এই ছত্রাকের জীবাণু দেহে প্রবেশ করলে সাইনাস বা ফুসফুসকে সবচেয়ে বেশি আক্রমণ করে। এর আক্রমণের ফলে ত্বকে কাটা, পোড়ার মতো দাগ রয়ে যায়। ফুসফুস প্রতিস্থাপন বা আইসিইউতে থাকা রোগীর ক্ষেত্রে ভয়াবহ ভূমিকা নেয় এই ভাইরাস। 

ভি কে পাল এর মতে, ব্ল্যাক ফাঙ্গাস ভেজা জায়গাতেই বাঁচে। ডায়াবেটিস নেই এমন রোগীদের মধ্যে এর সংক্রমণের সম্ভাবনা ক্ষীণ। কোভিড রোগীদের মধ্যে ছত্রাকের সংক্রমণের খবর মিলেছে বটে তবে আমি জানাতে চাই- এখনো কোনো বড় সংক্রমণ ঘটেনি। আমরা সবরকম স্তর থেকে সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা চালাচ্ছি। 

এই ছত্রাকের সংক্রমণ সম্পূর্ণ প্রতিরোধ্য এবং ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে থাকলে চিন্তার কারণ নেই বলেই মত ভি কে পালের।

এই রোগে মূলত যে লক্ষণগুলো দেখা যাচ্ছে, তা হল নাক বন্ধ হয়ে আসা, নাক থেকে চাপা রক্তের মতো কালো পুঁজ বেরনো, চোয়ালে ব্যথা, নাকের উপর কালচে দাগ।

সূত্র: জিনিউজ

© ২০২১ সময় টিভি মিডিয়া নেটওয়ার্ক
সমস্ত অধিকার সংরক্ষিত
DMCA.com Protection Status
সময় মোবাইল অ্যাপ ডাউনলোড করুন
Somoy Tv App PlayStore Somoy Tv App AppleStore
ফলো সামাজিক সময়