সম্পূর্ণ নিউজ সময়
স্বাস্থ্য
৫ টা ১২ মিঃ, ২৮ এপ্রিল, ২০২০

করোনায় যুক্তরাজ্যে শিশুর দেহে বিপজ্জনক উপসর্গ

যুক্তরাজ্যে শিশুর দেহে বিপজ্জনক কিছু উপসর্গ দেখা যাচ্ছে বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকররা। যেটা প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের (কোভিড-১৯) সঙ্গে সম্পর্কিত হতে পারে।
স্বাস্থ্য সময় ডেস্ক

এদিকে দেশটির জাতীয় স্বাস্থ্যসেবা ব্যবস্থা এনএইচএস থেকে সারা দেশের ডাক্তারদের সতর্ক করে দেয়া হয়েছে যে, লন্ডন এবং যুক্তরাজ্যের অন্য কিছু জায়গার হাসপাতালে ইনটেনসিভ কেয়ারে অত্যন্ত অসুস্থ কিছু শিশুর চিকিৎসা করা হচ্ছে - যাদের লক্ষণগুলো খুবই অস্বাভাবিক।

এর মধ্যে আছে ফ্লুর মতো জ্বর এবং দেহের বিভিন্ন জায়গায় প্রদাহ বা জ্বালাপোড়ার অনুভূতি। এতে আক্রান্তদের মধ্যে কিছু শিশু করোনা পজিটিভ বলে দেখা গেছে, তবে সবাই নয়।

কত শিশুর মধ্যে এ নতুন ধরনের লক্ষণ দেখা গেছে তা স্পষ্ট নয়। তবে এ সংখ্যা কম বলেই মনে করা হচ্ছে। তাদের মধ্যে তীব্র জ্বর, রক্তচাপ কমে যাওয়া, শ্বাসকষ্ট এবং শরীরে ‘র‍্যাশ’ বা ফুসকুড়ি দেখা দেয়া।

তাদের কারো কারো পেটে ব্যথা, বমি, ডায়রিয়া, হৃৎপিণ্ডের প্রদাহ এবং রক্ত পরীক্ষার অস্বাভাবিক ফল আসার মতো লক্ষণও দেখা যাচ্ছে।

উত্তর লন্ডনের কিছু ডাক্তারের কাছে আসা এই সতর্কবাণীতে বলা হয়- এমন উদ্বেগ বাড়ছে যে যুক্তরাজ্যের শিশুদের মধ্যে করোনার সঙ্গে সম্পর্কিত এক প্রদাহজনিত রোগ ছড়াচ্ছে।

এতে বলা হয়েছে, এমনও হতে পারে যে এটা হয়তো এমন এক সংক্রমণ যা এখনো শনাক্ত হয়নি।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, শরীরের রোগ প্রতিরোধ ব্যবস্থা যদি কোনো একটা সংক্রমণের সাথে লড়াই করতে গিয়ে হার মেনে যাবার মতো অবস্থা হয়, তাহলে এ ধরনের লক্ষণ দেখা দিতে পারে।

এনএইচএসের সতর্কবাণীতে এ ক্ষেত্রে জরুরি চিকিৎসা নেয়ার কথা বলা হয়েছে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, করোনায় আক্রান্ত হয়ে গুরুতর অসুস্থ হওয়া শিশুর সংখ্যা খুবই কম।

কেমব্রিজের একজন শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. নাজিমা পাঠান বলেছেন, স্পেন এবং ইতালিতে থাকা তার সহকর্মীরা শিশুদের মধ্যে একই ধরনের সংক্রমণের খবর তাকে জানিয়েছেন।

তবে তার কথায়, করোনাভাইরাসের সংস্পর্শে এলেও শিশুদের মধ্যে গুরুতর ফুসফুসের সংক্রমণ ঠেকানোর ক্ষমতা বেশি থাকে।

© ২০২১ সময় টিভি মিডিয়া নেটওয়ার্ক
সমস্ত অধিকার সংরক্ষিত
DMCA.com Protection Status
সময় মোবাইল অ্যাপ ডাউনলোড করুন
Somoy Tv App PlayStore Somoy Tv App AppleStore
ফলো সামাজিক সময়