মোঃ আবুল বাশার
আপডেট
৩১-১২-২০১৯, ২১:০৮

৭ হাজার টাকা পুঁজি নিয়ে ৭ কোটি টাকার মা‌লিক এই নারী

৭ হাজার টাকা পুঁজি নিয়ে ৭ কোটি টাকার মা‌লিক এই নারী
মিসেস সুফিয়া ইয়াসমিন। একজন সফল নারী উদ্যোক্তা। পথে পথে নানা প্রতিবন্ধকতা মোকাবেলা করতে হয়েছে মিসেস ইয়াসমিনকে। তবে দমে যাননি। ১৯৯৭ সাল থেকে কুটির শিল্পের কাজ করে প্রায় ৭ কোটি টাকার সম্পদ বানিয়েছেন। আজ তার ব্যবসার পুঁজি প্রায় প্রায় অর্ধকোটি টাকা। নিজস্ব পরিমণ্ডলে তিনি এখন একজন সফল উদ্যোক্তা হিসেবে পরিচিত। চীন থেকে গার্মেন্টস সিকিউরিটি এলার্ম টেগ গার্মেন্টস এক্সেসরিজ ও বিভিন্ন ধরনের পণ্য আমদানি করেন ইয়াসমিন।

সফল এই নারী উদ্যোক্তা সম্প্রতি মুখোমুখি হন সময় সংবাদের। শোনান তার সফলতার গল্প-

সময়: আজকে আপনি একজন সফল নারী উদ্যোক্তা। এর শুরুর গল্পটা শুনতে চাই।
 
সুফিয়া ইয়াসমিন: ময়মনসিং থেকে ঢাকায় আসি ১৯৯৭ সালে। আমার স্বামী তখন বেকার, চাকরি খুঁজছিলেন। তখন আমার দুই ছেলে। সংসারে অভাব অনটন লেগেই থাকত। সন্তানদের এমনকি দুধ কেনার টাকাও থাকতো না। তখন আমি কিছু করার চিন্তা করি। নারী হয়েছি তাতে কি! আমিও কিছু করবো। আমার পরিবারের জন্য এবং নিজের জন্য হলেও কিছু কর‌বো।

তখন আড়ং কুটির শিল্পের কিছু কাজ করাতো তাদের কিছু প্রশিক্ষিত লোক দিয়ে। তখন আমি আড়ং-এর পাঠের কুটির শিল্প কিছু স্যাম্পল বানাই বাসায় বসে। আমার এই স্যাম্পলগু‌লো খুব পছন্দ করে আড়ং। তারা আমাকে কিছু কিছু কাজ দেয়। আমি এ কাজগুলো করে দিতাম। আমার কাজে খুশি হয়ে আড়ং আমা‌কে মজুরির চেয়েও কিছু টাকা বাড়িয়ে দিত। ১৯৯৭ সালের শেষ নাগাদ আমি এই কাজ ক‌রে প্রতি মাসে ২৫০০ টাকার মতো আয় করতাম। অনেকদিন এই কাজ করেছি। আমার সংসারের কিছুটা হলেও সাহায্য হ‌য়ে‌ছে সেই টাকায়। অনেকগুলো টাকাও জমি ছিল, হঠাৎ আমার মেজো ছেলে অসুস্থ হয়ে পড়ায় সব টাকা খরচ হয়ে যায়। কিন্তু আমি হতাশ হইনি, কারণ আমি মনে করতাম চেষ্টা করলে সফলতা আসবেই।


২০০৮ সাল তখন আমার স্বামী দেশ ছেড়ে দুবাই যায় চাকরির জন্য। তখন আমি আড়ং-এর কাজ বন্ধ করে দেই। কারণ আমার দুই ছেলে এক মেয়ে-তাদেরকে আমি সামাল দিয়ে সারারাত কাজ করে উঠতে পারছিলাম না। তখন চিন্তা করি পার্টটাইম কোনো চাকরি করবো। তখন আমি উত্তরা জসিমউদ্দিন রো‌ডের সংলগ্ন এক কোম্পানিতে জয়েন করি। কিছুদিন যাওয়ার পর বুঝতে পারলাম এই ফ্ল্যাটে সেল কোম্পানি মানুষকে ধোঁকা দেয়। মানুষকে প্রচুর ঠকানো হতো, তখন আমি আর আমার অফিসের তিনজন ক‌লিগ মি‌লে উত্তরা ৪ নম্বর সেক্টরে পার্কে বসে চিন্তা করতাম কি করা যায়। হঠাৎ মাথায় প্লান আসে চিটাগাং থেকে শুটকি এনে ঢাকার দোকানে দোকানে বিক্রি করব। কিন্তু টাকার অভাবে পড়ে এই ব্যবসাটাও করা হয়ে উঠেনি।

হঠাৎ একদিন আমার এক কলিগ গার্মেন্টসের একটি প্রোডাক্ট নিয়ে আসে এবং আমাদের দেখায়। কিন্তু আমরা তখন বুঝতাম না যে এটা কি আইটেম। কিন্তু এটুকু নিশ্চিত হতে পেরেছিলাম যে গার্মেন্টসের আইটেম। তখন হঠাৎ আচমকা ফ্ল্যাট কেনার জন্য একজন লোক আমাকে কল দেয়। ওনার ফ্ল্যাট লাগবে, তখন আমি উনাকে সত্য বলে দেই যে দেখেন আমি এই অফিস এখন আর কাজ ক‌রি না। কিন্তু আপনাকে একটা কথা বলি, ওনাদের কোন ফ্ল্যাট নেই। আপনার কাছ থেকে টাকা নিয়ে আপনাকে ঘুরাবে। তখন অনেক খুশি হয়ে আমাকে বলে যে কোনো দরকারে যেন ওনাকে জানাই, উনি আমাকে হেল্প করবে।

তারপর আমি গার্মেন্টসের এই প্রোডাক্ট সম্পর্কে ওনাকে বলি উনি আমাকে দক্ষিনখান নিপা গার্মেন্টসের ঠিকানা দিয়ে একজন লোকের কথা বলেন। তিনি বলেন, উনার কাছে নিয়ে গেলে আপনি জানতে পারবেন তখন সেখানে ছুটে যাই। তিনি প্রোডাক্ট দেখে বলতেছে বায়াররা আমাদের এই প্রোডাক্ট এনে দেয় আমি আসলে জানি না এগুলো কোথা থেকে আনে। তখন উনি আমাকে টঙ্গী টিএনটি মার্কেটের যোগাযোগ করার কথা বলেন।

তখন আমি ট‌ঙ্গি বাজারে যাই, তখন বাজারের এক ব্যবসায়ী বলে এটা গার্মেন্টসের এলার্ম টেগ। এই প্রোডাক্ট আপনি গুলিস্তান, মিরপুর, যাত্রাবাড়ী কিছু দোকানে পেতে পারেন। তখন আমি আর আমার পার্টনার এই প্রোডাক্ট খুঁজতে থাকি। কিন্তু কোথাও পাচ্ছিলাম না।

আমাদের দু'জনের তখন পুঁজি ছিল মাত্র সাত হাজার টাকা। এরিমধ্যে কয়েক জায়গায় ঘুরে আমাদের ১০০০ টাকা খরচ হয়ে যায়। কিন্তু প্রোডাক্ট আর পাই না। সবশেষ আমরা দু'জন সিদ্ধান্ত নিলাম। লাস্ট মিরপুর যাবো, না পেলে আমরা এই ব্যবসা বাদ দিবো। তখন মিরপুরে এই প্রডাক্টগুলো পেয়ে যাই তখন প্রোডাক্টগুলো কেনার কথা বললে, দোকানদাররা আমাদের কাছে ৪০ টাকা কেজি দরে বিক্রি করে।

আমরা পাঁচ হাজার টাকার প্রোডাক্ট কিনি। তারপর আমরা শুরু করি বায়িং হাউজ খোঁজা- যাদের কাছে এই প্রডাক্টগুলো বিক্রি করা যাবে। হঠাৎ একটি বায়া‌রের সাথে যোগাযোগ করলে তিনি আমাদের এই প্রডাক্টগুলো কিনবে বলে জানায়। তখন প্রতি পিস ৮ টাকা করে কিনবে বললে আমি আর আমার ব্যবসায়ী আরেক পার্টনার সবগু‌লো প্রোডাক্ট বিক্রি করে দেই। এই শুরু হল আমাদের এলার্ম টেক সংগ্রহ ও বিক্রি করে প্রতিমাসে আমরা এক লাখ থেকে দুই লাখ টাকা লাভ করতাম।

হঠাৎ এই মালের ক্রাইসিস তৈরি হয় বাংলাদেশ। আর প্রোডাক্ট পাচ্ছি না কোথাও। তারপর একদিন সুমন নামে এক লোকের সাথে যোগাযোগ করি। তি‌নি এইসব প্রোডাক্ট বিক্রি করত। উনাকে যখন বলি আপনি কোথা থেকে এই প্রডাক্টগুলো আনেন। তিনি চায়না এবং তাইওয়ানের কথা বলে। তখন উনার সাথে ব্যবসা শুরু করি। আমরা এই প্রডাক্টগুলো উনার সাথে আনতাম।

দিন দিন আমার ব্যবসা বড় হচ্ছে, তখন আমি চিন্তা করলাম আমিও যাব চায়না। সব কাগজ করলাম। খুব শিক্ষিত ছিলাম না, এক জনের কাছ থেকে আরেকজনের কাছ থেকে জেনে সবকিছু ঠিক করে আমি চীন যাই। ওখানে গিয়ে অনেক ব্যবসায়ীর সাথে যোগাযোগ করি। এরপর চায়না ও তাইওয়ান থেকে প্রোডাক্ট আনা শুরু করি। এভাবেই সকল বাধা পেরিয়ে টাকা আয় করা শুরু করি। এখনো এই গার্মেন্টসের এলার্ম এর পাশাপাশি আরো অনেক আইটেম আমরা চায়না থেকে ইমপোর্ট করি।

সময়: আপনার ব্যবসার পরিধি বর্তমানে কেমন বেড়েছে?

সুফিয়া ইয়াসমিন: বর্তমানে আমার একটি প্রতিষ্ঠান রয়েছে। যার নাম জি টেক সলিউশন। আমি চিন্তা করলাম আরো কি ব্যবসা শুরু করা যায়। তখন শুরু করি লাইটের বিজনেস পাশাপাশি গার্মেন্টস এক্সেসরিজ এবং ওয়ালপেপারসহ আরও বিভিন্ন ধরনের পণ্য। আমার ব্যবসার পরিধি যেমন বাড়ছে এই পর্যন্ত আমি সাত কোটি টাকারও বেশি আয় করেছি। এখনো আমার অর্ধকোটি টাকার মতো পুঁজি রয়েছে।
 
সময়: একজন নারী হয়েও এই পর্যায়ে আসতে কতটা বেগ পেতে হয়েছে?

সুফিয়া ইয়াসমিন: আমি কাজকে সব সময় পছন্দ করতাম। আমার কাজ খুব ভালো লাগতো আর ছোট থেকেই ভাবতাম আমি নিজে কিছু করব। আমার প্রতিষ্ঠানে থাকবে। আমার লক্ষ্য অটুট ছিল, আমি শত বাধা অতিক্রম করে আমার স্বপ্নকে এগিয়ে নিয়ে গেছি। আমি এখন সফল। পরিশ্রম করলে সফলতা আসবেই এখন পরিশ্রম করছি বাকিটা জীবন পরিশ্রম করব।

সময়: নতুন নারী উদ্যোক্তাদের জন্য আপনার কী পরামর্শ?

সুফিয়া ইয়াসমিন: আমার প্রতিটি নারীর জন্য একটাই কথা থাকবে, আমরা নারী হয়েছি বলে কি হয়েছে! আমরাও মানুষ। যাদের লক্ষ্য অটুট থাকে এবং যদি পরিশ্রম করতে পারি, আমার মনে হয় নারী বা পুরুষ নয়, প্রতিটি মানুষই সফল হবে। এছাড়া আমরা আগে ওই রকম কোনো সুযোগ পায়নি, কিন্তু বর্তমান সরকার, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নারীদের অনেক সুযোগ করে দিয়েছেন। তাই এই সুযোগগুলো ব্যবহার করে নারীদের পুরুষদের মতো এগিয়ে যেতে হবে।

সময়: নারী হিসেবে ব্যবসা করতে এসে কোন কোন ধরনের প্রতিবন্ধকতার সম্মুখীন হয়েছেন?

সুফিয়া ইয়াসমিন: অনেক প্রতিবন্ধকতার শিকার হতে হয়েছে। অনেকে অনেক কথা বলতো তারপরও আমি হতাশ হয়নি। কারণ আমি ভাবতাম, যে যা বলে বলুক আমি তো জানি আমি কি রকম। সফলতায় পৌঁছাতে বাধা আসবেই। আমার ছোট ছোট ছেলে মেয়ে ছিল। তাদেরকে রেখে আমি আমার স্বপ্নকে বাস্তবায়ন করছি। আমার স্বামীকেও অনেকে অনেক কিছু বলেছে, তারপরও আমি আমার স্বপ্ন থেকে একটুও পিছিয়ে যায়নি তাই আমি আজ সফল।



DMCA.com Protection Status

এই বিভাগের সকল সংবাদ
করোনা ভাইরাস লাইভ আপডেট
আক্রান্ত চিকিৎসাধীন সুস্থ মৃত্যু
৫৪৫৪২৪ ৪১৫৩১ ৪৯৫৪৯৮ ৮৩৯৫
বিস্তারিত
‘রোহিঙ্গা ইস্যুতে বাংলাদেশের পাশে আছে ওআইসি’ স্কুল-কলেজের আগে বিশ্ববিদ্যালয় খোলা উচিত, মত শিক্ষাবিদদের নোয়াখালীতে মাদক কারবারীর কারাদণ্ড ভর্তি পরীক্ষায় আগের জিপিএ বহাল চান বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তিচ্ছুরা অর্থ আত্মসাৎ: আল হামীম পাবলিকের ৩ কর্মকর্তা কারাগারে মিয়ানমারে সেনাবিরোধী বিক্ষোভে গুলি, নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৭ খালেদার মানহানির দুই মামলার শুনানি পেছাল স্বল্পোন্নত দেশ থেকে বের হলে কমতে পারে রফতানি রাজধানীতে শিক্ষার্থীর মৃত্যু, সন্দেহে জবি ট্রেজারারের ছেলে ‘পার্বত্য জেলায় সেনাবাহিনীর ছেড়ে দেওয়া ক্যাম্পে পুলিশ মোতায়েনের সিদ্ধান্ত’ সামরিক সরকারের বিরুদ্ধে যাওয়ায় মিয়ানমারের রাষ্ট্রদূত বহিষ্কৃত বেসরকারি হাসপাতালের সেবামূল্য সরকার নির্ধারণ করবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী পিডিদের প্রকল্প এলাকায় থাকার তাগিদ শিল্পমন্ত্রীর গোপালগঞ্জে রিজভীর বিরুদ্ধে সমন জারি পরীক্ষার দাবিতে আমরণ অনশনে জাবি শিক্ষার্থীরা ১ মার্চ থেকে ইলিশ ধরায় নিষেধাজ্ঞা পাকস্থলীতে ১৪শ’ ইয়াবা! যত অর্জন সব আওয়ামী লীগের হাতেই: ড. হাছান মাহমুদ ‘বঙ্গবন্ধু অ্যাওয়ার্ড ফর ওয়াইল্ডলাইফ কনজারভেশন’ পাচ্ছেন যারা বয়স্ক ভাতার সেই টাকা বুঝিয়ে দিল ব্যাংক ইউপি নির্বাচনে আর অংশ নেবে না বিএনপি: ফখরুল মাদক সেবনের টাকা না দেওয়ায় মাকে খুন করল মেয়ে মানিকগঞ্জে হত্যা মামলায় আসামির মৃত্যুদণ্ডাদেশ মেডিকেলে আসনপ্রতি লড়বে ২৮ জন, বাড়ছে ২৮২ আসন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুললে বোঝা যাবে কে টিকে থাকবে, কে থাকবে না: প্রধানমন্ত্রী টুঙ্গিপাড়ায় খুঁটির বদলে শিমুল গাছে বিদ্যুৎ লাইন করোনায় মৃত্যু বাড়ল দেড়গুণ সামাজিক সুরক্ষা ভাতা পায় না ৪৬ শতাংশ মানুষ! ইভিএমের বোতামে ছাত্রলীগ নেতার হাত, বাধা দিল ভোটাররা (ভিডিও) ‘মনে হচ্ছিল জেলখানায় আছি’ চারদিনেও গ্রেফতার হয়নি হাত-পা বেঁধে নির্যাতনকারী সেই ইউপি সদস্য সিআইডির অনুসন্ধানে বেরিয়ে এলো আনুশকার মৃত্যুর কারণ স্বপ্ন পূরণে এগিয়ে চলছে সরকার: পলক বেপরোয়া গাড়ি চালানো বন্ধ করতে বললেন ওবায়দুল কাদের নারায়ণগঞ্জে ৪ শ্রমিক হত্যায় ২ আসামির মৃত্যুদণ্ড, ৯ জনের যাবজ্জীবন সিরাজগঞ্জে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দু’গ্রুপের সংঘর্ষ, আহত ৩০ আড়াই হাজার ফ্ল্যাট পাচ্ছেন সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীরা জুটি বাঁধছেন ইয়াশ-দীঘি ডিজিটাল সেবায় আসছে পোস্ট অফিস যেভাবে শীর্ষ কোটিপতি হলেন আমাজনের জেফ বেজস অর্থনীতির বৈশ্বিক আঙিনায় বাংলাদেশ কি পারবে মাথা উঁচু করে দাঁড়াতে? দ্বিতীয় কোভিড টেস্টেও তামিম-মুশফিকরা নেগেটিভ মেক্সিকোতে কার্টেল যুদ্ধে নিহত ১১ খুলনায় ওষুধ ব্যবসায়ী হত্যা মামলায় ৫ জনের যাবজ্জীবন পৌরসভা নির্বাচনে দেশের বিভিন্ন স্থানে সংঘর্ষ, নিহত ১ হাইভোল্টেজ ম্যাচে মুখোমুখি চেলসি-ম্যানইউ রেললাইনে ৬ ইঞ্চি ফাটল, গতি ঘণ্টায় ১০ কিমি আর্সেনালকে আতিথ্য দেবে লেস্টার সিটি, টটেনহামের প্রতিপক্ষ বার্নলি খাশোগি হত্যায় সৌদিকে সমর্থন আরব দেশগুলোর পদ থেকে অব্যাহতি চাইলেন প্রধানমন্ত্রীর উপপ্রেস সচিব খোকন জো বাইডেনের দুই লাখ কোটি ডলারের ত্রাণ পরিকল্পনা অনুমোদন শান্তিপূর্ণ কর্মসূচিতে হামলা চালিয়েছে পুলিশ: মোশাররফ বিক্ষোভে ফুঁসছে মিয়ানমার, পুলিশের গুলিতে নিহত বেড়ে ২ ম্যারাডোনার মৃত্যু নিয়ে এবার মেয়েকে জিজ্ঞাসাবাদ কার্টুনিস্ট কিশোর কবিরের রিমান্ড নামঞ্জুর বেকার হলেও তিনি ‘বিসিএস ক্যাডার’, করতেন বড় সব প্রতারণা এবার ড্রোন ব্যবহার করে মশা মারবে ডিএনসিসি (ভিডিও) সাংবাদিকদের মোবাইল কেড়ে ভোটকেন্দ্র ছাড়তে বললেন বিজিবি কর্মকর্তা মেট্রোরেলের আরো একটি গার্ডার স্থাপন মাদ্রাসাছাত্রীকে ধর্ষণের পর হত্যা, গাছে ঝুলন্ত মরদেহ চুরি হওয়া এক শিশুর মরদেহ মিলল ধানের ডোলে, অপরজন জীবিত উদ্ধার ছেলে শিক্ষার্থী কমে যাচ্ছে কেন, ব্যবস্থা নিতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ পুলিশের অপরাধ তদন্তে কমিশন চেয়ে হাইকোর্টে রিট আয়মান সাদিক হলেন ফেসবুকের সেরা কন্টেন্ট নির্মাতা মোংলায় হরিণের মাংসসহ শিকারি আটক ফেসবুকে বিক্রি হচ্ছে আমাজন বনাঞ্চলের জমি যুক্তরাষ্ট্রের যে বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়লে মিলবে দুই কোটি টাকা বৃত্তি! ইংলিশদের বিপক্ষে চতুর্থ টেস্টে খেলবেন না বুমরাহ ডেলিভারিতে বাচ্চার পা ধরে টানাটানি, মাথা ছিঁড়ে রইল গর্ভে অনুমোদন পেল জনসনের এক ডোজের টিকা সিরাজগঞ্জে নিহত কাউন্সিলরের ওয়ার্ডে পুনরায় ভোট চলছে রাজধানীতে ছাত্রদল-পুলিশ ব্যাপক সংঘর্ষ (ভিডিও) যেভাবে সারাবিশ্বে করোনার ভ্যাকসিন দিচ্ছে সেরাম আবারও উত্তাল মিয়ানমার, নিহত ১ শাহিদকে ক্রাশ বলার জবাব পেল শ্রাবন্তী সেপটিক ট্যাংক বিস্ফোরণে ৫ জন আহত অনন্ত জলিলের অনুষ্ঠানে হট্টগোল, চাইলেন ক্ষমা সেনাবাহিনী বিরোধী কথা বলায় মিয়ানমারের সেই দূত বরখাস্ত দুই মাস বেকার থাকবে চাঁদপুরের জেলেরা দিনদুপুরে রাজধানীতে প্রবাসীর স্ত্রীকে তুলে নিয়ে ধর্ষণ! বিঘ্নিত হচ্ছে মোংলা-ঘষিয়াখালী আন্তর্জাতিক নৌ চ্যানেলের খনন কাজ নতুন রূপে ঐতিহাসিক লালদিঘীর ময়দান মোংলার পশুর চ্যানেলে কার্গোডুবি, ১২ নাবিক জীবিত উদ্ধার রোনালদোর গোলেও জয়বঞ্চিত য়্যুভেন্তাস তাপমাত্রা বৃদ্ধির আভাস, হতে পারে বৃষ্টি ডিয়নের জালে পিএসজির গোল উৎসব লাল-হলুদ-সবুজ রঙে বিভক্ত ইতালি কার্টুন দেখতে চাওয়ায় নিজ সন্তানকে গলা টিপে হত্যা! নতুন ভিসায় যুক্তরাষ্ট্রের নিষেধাজ্ঞা করোনার তাণ্ডব থেকে সুস্থ ৯ কোটি যেসব পৌরসভায় হচ্ছে ভোট মানুষ খুন করল মোরগ, নেওয়া হলো থানায়! আজ ডায়াবেটিস সচেতনতা দিবস মিথুনের স্বপ্ন পূরণের দিনে মকরের বিপদের শঙ্কা পঞ্চম ধাপে ২৯টি পৌরসভার ভোটগ্রহণ চলছে ২৮ ফেব্রুয়ারি: ইতিহাসের এই দিনে যা ঘটেছিল রোববার রাজধানীর যেসব জায়গায় যাবেন না তুরাগে শিশুর মরদেহ উদ্ধার কুয়েতে জাতীয় ও স্বাধীনতা দিবস উদযাপন বিদ্যালয় থেকে ল্যাবের ১১ ল্যাপটপ চুরি
আরও সংবাদ...
ঢাকার রাস্তায় নামছে ‘বাঘ’ তামিমা সম্পর্কে যা জানা গেল! তামিমার চার বিয়ে তিন স্বামী! পপিকে বিয়ে করতে চাওয়া যুবকের পরিচয় বিরল রোগে আক্রান্ত নবজাতক, গবেষণায় শিশুকে দান করবেন দম্পতি খেলতে গিয়ে হরিণকে ‘বন্ধু’ বানিয়ে বাসায় নিয়ে এলো শিশু! প্রেমিকার অপেক্ষায় ৪০ বছর ধরে ঢাবি হলের বারান্দায় সরু (ভিডিও) ঢাকায় ৫০ টাকায় গরুর মাংস! তামিমার তিন নম্বর স্বামী নাসির হোসেন! রহিমার প্রেমের টানে কেশবপুরে আমেরিকান ইঞ্জিনিয়ার চাঁদপুরের বাস দুর্ঘটনার ভিডিও ভাইরাল টিকা নিলে বিশেষ অঙ্গ ছোট হওয়ার খবর কতটা সত্য? আলোচনায় ব্যাচেলর পয়েন্টের ‘নোয়াখালীর শিমুল’ এই লেখকের প্রতি কপি বইয়ের দাম ৩ লাখ টাকা মহানবীর (সা.) ১৪০০ বছর আগের যে বাণী সত্য প্রমাণ পেল বিজ্ঞান পর্ন সাইট খুললে তথ্য যাবে পুলিশের কাছে! ছিলেন নাইটগার্ড, ১৫ দিনের ছুটি নিয়ে হয়ে গেলেন মেয়র আল জাজিরার প্রতিবেদন: পেছনে কারা? সুইডেনে পড়তে গিয়ে পালিয়ে যাচ্ছেন বাংলাদেশিরা জনপ্রিয় টিকটক তারকা রফির মরদেহ উদ্ধার শাহরিয়ার নাফিসের বিদায়ে স্ত্রীর আবেগঘন স্ট্যাটাস আল জাজিরার সামি, আপাদমস্তক অপরাধে মোড়া এক চরিত্র! এখনই খুলছে না শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, ফেব্রুয়ারি-মার্চ দেখে এপ্রিলে সিদ্ধান্ত নাসিরের প্রেমিকার তালিকায় অভিনেতা সিদ্দিকের সাবেক স্ত্রী! বিয়ে করলেন নাসির ভ্যাকসিন নিলে সাড়ে ৮ হাজার টাকা পুরস্কার! যে কারণে স্বামী-সন্তান ছেড়ে নাসিরকে বিয়ে করেছে তামিমা সুইমিং পুলে সৃজিত-মিথিলার রোমান্স টিকা দেওয়ার দ্বিতীয় দিনে কমল মৃত্যু ও আক্রান্ত ভাইয়ের পা ধরে মাফ চেয়েও রক্ষা পেলেন না নিজাম বছরের ভাইরাল দুই জুটি (ফটো অ্যালবাম) এবার ট্রলকারীদের জবাব দিলেন নায়ক রিয়াজ আল জাজিরার সংবাদ ভিত্তিহীন দাবি, সরকারের প্রত্যাখ্যান মধ্যবয়সী নারীদের টার্গেট করে শারীরিক সম্পর্ক করে বরিশালের বেলাল কেন্দ্রীয় চুক্তি থেকে বাদ সাকিব! বিতর্কের মধ্যেই নাসির-তামিমার জমকালো বিবাহোত্তর অনুষ্ঠান পার্লারে গিয়ে মুখ পুড়ল সুন্দরী নারীর! (ভিডিও) সুখবর পেতে পারেন ৪৩তম বিসিএস আবেদনকারীরা ৪০ হাজার কোটি মার্কিন ডলারের মালিক ছিলেন মুসা! (ভিডিও) আল-জাজিরায় সাক্ষাৎকারের চাঞ্চল্যকর তথ্য দিলেন মুন্না এসএসসির প্রকাশিত সিলেবাস বাতিল ছানাদের বাঁচাতে লড়াই করে বিষধর সাপ রুখে দিল মা মুরগি! (ভিডিও) স্বামীকে রেখে বিয়ে: আইন কী বলে? ২৩ বছরে ১১ শিশুর মা, নিতে চান ১০০ সন্তান! শিক্ষিকাকে বিয়ে করলেন একই বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রলীগ নেতা দেবরের লাগাতার ধর্ষণে অন্তঃসত্ত্বা প্রবাসীর স্ত্রী, অবশেষে বাড়ি ছাড়া টিকা নিয়ে ৪২৬ জনের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া ডিভোর্স ছাড়াই স্বামী-সন্তান ফেলে নাসিরকে বিয়ে করেছেন তামিমা! একাধিক সিনেমা থেকে বাদ দীঘি! সশস্ত্র বাহিনীকে নিয়ে খেলবেন না: সেনাপ্রধান
আরও সংবাদ...

মেনে চলি

Contact Address

Nasir Trade Centre, Level-9,
89, Bir Uttam CR Dutta Road, Dhaka 1205, Bangladesh
Email: somoydigitalsomoynews.tv

Find us on

  EnglishLive TV DMCA.com Protection Status
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন
উপরে
x