সম্পূর্ণ নিউজ সময়
বাংলার সময়
৬ টা ৭ মিঃ, ১৩ জুলাই, ২০১৯

উজানের ঢলে অস্থির উত্তরের ৫ জেলা

উজানের ঢলে অস্থির বৃহত্তর রংপুরের ৫টি জেলা। পানির প্রবল চাপে নীলফামারীতে ভাঙন ধরেছে বন্যা নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরক্ষা বাঁধে। তিস্তা ও ধাইজানের পানি ঢুকে পড়েছে লালমনিরহাটের লোকালয়ে। আর কুড়িগ্রামে দেখা দিয়েছে বন্যা। চর, দ্বীপচর ও নিচু এলাকায় পানিবন্দি ২১ হাজার পরিবারের লাখো মানুষ।
রতন সরকার

দুদিন ধরে বিপৎসীমার প্রায় ৩০ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে তিস্তা। বছরের সর্বোচ্চ প্রবাহ সামাল দিতে খুলে দেয়া হয়েছে ব্যারেজের সবকটি গেট। তবু থেকে থেকে পানি ফুলে ফেঁপে উঠছে ব্যারেজের উজানে।

এ অবস্থায় ডানতীর প্রতিরক্ষা বাঁধের ভাঙন আতঙ্কে ফেলেছে জলঢাকার নদীপাড়ের মানুষকে। তিস্তা আর সানিয়াজানের মিলিত আঘাত সইতে পারছেনা হাতিবান্ধার গোড্ডিমারীর মানুষ। তিস্তা ছাড়াও ধরলা, দুধকুমার, ব্রহ্মপুত্রসহ ১৬টি নদীর জেলা কুড়িগ্রামের সদর ও উলিপুরে ঢুকে পড়েছে বানের পানি। নদীবহুল এই অঞ্চলে বন্যা নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা ভেঙে পড়ায় এরই মধ্যে দুর্ভোগে পড়েছেন ২১ হাজার পরিবারের লাখ মানুষ। 

তবে কিছু কিছু ভাঙা-চোরা মেরামতের চেষ্টা করছে পানি উন্নয়ন বোর্ড।

পানি উন্নয়ন বোর্ডের উত্তরাঞ্চলের প্রধান প্রকৌশলী জ্যোতিপ্রসাদ ঘোষ বলেন, বন্যা প্রতিরোধ করার জন্য যা যা করা দরকার আমরা তাই করেছি।

সারা বছর খোঁজ না নিলেও বন্যা এলেই আশ্বাসের ফুলঝুরি নিয়ে আসেন স্থানীয় প্রশাসন আর এলাকার মন্ত্রী-এমপিরা। কিন্তু তাদের সেই আশ্বাসে আর বিশ্বাস রাখতে পারছে না এলাকার মানুষ।

নীলফামারীতে ১০ হাজার, লালমনিরহাটে ৬ হাজার, কুড়িগ্রামে ৩ হাজার এবং রংপুর ও গাইবান্ধা জেলায় ১ হাজার করে পরিবার এখন পানিবন্দি। 

© ২০২১ সময় টিভি মিডিয়া নেটওয়ার্ক
সমস্ত অধিকার সংরক্ষিত
DMCA.com Protection Status
সময় মোবাইল অ্যাপ ডাউনলোড করুন
Somoy Tv App PlayStore Somoy Tv App AppleStore
ফলো সামাজিক সময়