SomoyNews.TV

Somoynews.TV icon বাংলার সময়

আপডেট- ২২-১০-২০১৯ ২২:৩৪:৪২

তিতাসে ছেলের মার খেয়ে মায়ের আত্মহত্যা

suicide

ছেলের অত্যাচার সহ্য করতে না পেরে আত্মহত্যা করেছেন লতিফা বেগম (৫৭) নামের এক মা। মঙ্গলবার (২২ অক্টোবর) সকাল সাড়ে ৭ টার দিকে কুমিল্লার তিতাস উপজেলায় ঘটনাটি ঘটে।

তিতাস থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আহসানুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, উপজেলার বন্দরামপুরে গ্রামের শাহ আলমের পুত্র আলিমের সঙ্গে তার মা লতুফা বেগমের (৫২) প্রায়ই পারিবারিক কলহ লেগে থাকত। এরই জের ধরে বিভিন্ন সময় ছেলে আলিম মায়ের ওপর অত্যাচার করত। সোমবার রাতেও মা ছেলের কলহ হয়। পরে ছেলের অত্যাচার সহ্য করতে না পেরে মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে ঘরে থাকা কেরির বড়ি (কীটনাশক) খেয়ে আত্মহত্যা করেন মা লতুফা বেগম।

জানা যায়, ছেলের পক্ষ নিয়ে স্থানীয় দালালরা ঘটনা ধামাচাপা দিতে নানা কৌশল অবলম্বন করেন।

এদিকে কড়িকান্দি ইউপির সদস্য আবুল কাশেম মুন্সী জানান, ‘তার ছেলে সোমবার দুপুরে তার মাকে মারধর করেন। পরে তার মা লতিফা বেগম আমার কাছে এসে ছেলের নির্যাতনের ব্যাপারে অভিযোগ করেন। শাকিল বিষয়টি ভালোভাবে না নিয়ে আবার তার মাকে মারধর করেন। আজ সকালে জানতে পারি, লতিফা বেগম বিষ পান করে আত্মহত্যা করেছেন। পরে আমরা পুলিশকে ঘটনাটি জানাই।’

তিতাস থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আহসানুল ইসলাম বলেন, আমি এখন ঘটনাস্থলে গিয়েছি। ছেলে আলিম পলাতক রয়েছে।

মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হয়।