SomoyNews.TV

Somoynews.TV icon বাংলার সময়

আপডেট- ১১-০৭-২০১৯ ১৮:৩৮:১০

সারা দেশের সঙ্গে বান্দরবানের সড়ক যোগাযোগ বন্ধ

cnt-shelter-somoy

প্রবল বৃষ্টিতে সড়ক তলিয়ে যাওয়ায় তৃতীয় দিনের মতো সারা দেশের সঙ্গে বান্দরবানের সড়ক যোগাযোগ বন্ধ রয়েছে। গত বুধবার রুমায় খাল পার হওয়ার সময় নিখোঁজ দু'জনের মধ্যে একজনের লাশ উদ্ধার হলেও অন্যজনের এখনো সন্ধান মেলেনি। খাগড়াছড়িতে মাইনি নদীর পানি বেড়ে নতুন কোরে ২৫টি গ্রাম তলিয়ে গেছে। এছাড়া রাঙামাটিতে আশ্রয়কেন্দ্রগুলোতে ভিড় করেছেন শত শত মানুষ।

টানা বৃষ্টিতে এখনো তলিয়ে আছে বান্দরবানের কেরাণীহাট সড়কের বড়দোয়ার এলাকার মূল সড়কটি। এতে গত ৩ দিন ধরে বান্দরবানের সাথে সারাদেশের সড়ক যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে রয়েছে। সাঙ্গু ও মাতামুহুরী নদীর পানি বৃদ্ধি অব্যহত থাকায় জেলা সদরের আর্মিপাড়া, ইসলামপুর, বাসস্টেশন ছাড়াও লামা ও আলীকদমের নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়। এরইমধ্যে ঝুঁকিপূর্ণ এলাকার মানুষকে সরিয়ে নেয়া হয়েছে ১শ' ২৬টি আশ্রয় কেন্দ্রে।

বৃহস্পতিবার সকালে খাগড়াছড়িতে মাইনী নদীর পানি বেড়ে নতুন কোরে ২৫টি গ্রামের সহস্রাধিক মানুষ পানিবন্দি হয়ে পড়েছে। ভেসে গেছে পুকুরের মাছ। ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে জমি ফসল। বুধবার সন্ধ্যায় খাগড়াছড়ির মেরুং এলাকায় সড়ক ও সেতু পানির নীচে তলিয়ে যাওয়ায় দীঘিনালার সাথে রাঙামাটির লংগদুর আভ্যন্তরীন সড়ক যোগাযোগ বন্ধ রয়েছে।

রাঙামাটির দুর্গম বাঘাইছড়ির নিম্নাঞ্চল তলিয়ে যাওয়ায় পানিবন্দি হয়ে পড়েছে ৫ শতাধিক মানুষ। খাবার ও বিশুদ্ধ পানির সংকট দেখা দেয়ায় আশ্রয় কেন্দ্রের লোকজনের বেড়েই চলছে।

প্রথমদিকে বাঘাইছড়ি উপজেলায় ১৪ টি আশ্রয়কেন্দ্র খোলা হলেও পরিস্থিতি খারাপের দিকে যাওয়ায় আরো ৫টি আশ্রয় কেন্দ্রে খোলার সিদ্ধান্তের কথা জানিয়েছে উপজেলা প্রশাসন।