SomoyNews.TV

Somoynews.TV icon বাংলার সময়

আপডেট- ২০-০৬-২০১৯ ১৪:০৩:৩৮

নারায়ণগঞ্জে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ১, আহত ৪ পুলিশ

gunfire

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় ডাকাত সন্দেহে গুলিতে লিপু ওরফে বোমা লিপু নামের একজন নিহত হয়েছেন। পুলিশের দাবি, তিনি ডাকাত দলের সদস্য এবং বন্দুকযুদ্ধে মারা গেছেন।

বৃহস্পতিবার (২০ জুন) ভোররাতে সদর উপজেলার ফতুল্লা থানার দাপা বালুর মাঠ এলাকায় এ ‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় ডিবি পুলিশের চারজন সদস্য আহত হয়েছেন। ঘটনাস্থল থেকে অস্ত্র ও গুলি উদ্ধার করা হয়েছে।

নিহত লিপু ফতুল্লার পিলকুনি এলাকার মৃত শামসুল হকের ছেলে। তার বিরুদ্ধে ডাকাতি, মাদক, অস্ত্র, বোমা ও নারী নির্যাতনসহ বিভিন্ন অভিযোগে ১৩টির বেশি মামলা রয়েছে।

জেলা গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশের উপ-পরিদর্শক কামরুল হাসান জানান, বুধবার সন্ধ্যায় লিপুকে গ্রেফতারের পর জিজ্ঞাসাবাদ করলে তিনি জানান তার কাছে মাদক ও অস্ত্র রয়েছে। তার দেয়া তথ্যমতে বৃহস্পতিবার ভোর রাতে দাপা বালুর মাঠ এলাকায় মাদক ও অস্ত্র উদ্ধার করতে গেলে লিপুর সহযোগীরা তাকে ছিনিয়ে নিতে পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোঁড়ে। আত্মরক্ষার্থে পুলিশও পাল্টা গুলি ছোঁড়ে। 

তিনি আরও জানান, গোলাগুলির এক পর্যায়ে লিপুর সহযোগীরা তাকে নিয়ে পালিয়ে যাওয়ার সময় লিপু গুলিবিদ্ধ হন। পরে তাকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করে নারায়ণগঞ্জ সদরের জেনারেল হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত ডাক্তার মৃত বলে ঘোষণা করেন।

এসময় আহত হন ডিবি পুলিশের পরিদর্শক এনামুল হক, এসআই কামরুল হাসান, এএসআই জুয়েল ও কনস্টেবল নাদিম। তাদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। এছাড়া ঘটনাস্থল থেকে একটি দেশীয় তৈরি ওয়ান শুটার গান ও এক রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়।

পুলিশের দাবি, নিহত লিপু আন্তঃজেলা ডাকাত দলের সদস্য এবং জেলা পুলিশের তালিকাভুক্ত অপরাধী ও মাদক ব্যবসায়ী। তাকে ধরিয়ে দিতে জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে ইতিপূর্বে ১০ হাজার টাকা পুরস্কার ঘোষণা করা হয়েছিল।