SomoyNews.TV

Somoynews.TV icon বাণিজ্য সময়

আপডেট- ২৫-০৮-২০১৮ ১০:৫৫:৩১

বগুড়ায় চামড়ার দামে হতাশ ছোট ব্যবসায়ীরা

bog-leather1

এবারের কোরবানি ঈদে বগুড়ায় চামড়ার বাজার ছিলো একেবারেই কম। গত ১০ বছরের মধ্যে এবারই সর্বনিম্ন দামে চামড়া কেনাবেচা হয়েছে। সরবরাহ স্বাভাবিক থাকলেও ট্যানারি মালিক এবং স্থানীয় মহাজনদের বেঁধে দেয়া দামের কারণে এমন অবস্থা বলে মনে করেন ক্ষুদ্র চামড়া ব্যবসায়ীরা। আর চামড়া ব্যবসায়ী নেতারা, বাজার ধসের কারণ হিসেবে ট্যানারি মালিকদের সিন্ডিকেট, লবণের দাম বৃদ্ধি এবং মহাজনদের কাছ থেকে বকেয়া  টাকা না পাওয়াকে দুষছেন।
 

দুঃস্থদের আশা ছিল ধনীদের কোরবানির চামড়ার টাকা দিয়ে সংসারের প্রয়োজন মেটাবেন আর ফড়িয়া এবং মৌসুমি ব্যবসায়ীরাও চামড়া কিনেছেন লাভের আশায়। কিন্ত এবার এ দুই শ্রেণির মানুষই চামড়ার দর নিয়ে চরম হতাশ ।  

স্থানীয় চামড়া ব্যবসায়ীরা বলছেন, চামড়া বিক্রির নিশ্চয়তা না থাকায় এবং লবণের দাম বেশি হবার কারণে ইচ্ছা থাকার পরও বেশি দামে চামড়া কিনতে পারেননি।  

চামড়া ব্যবসায়ীরা জানান, 'আমরা মহাজনের কাছে যে টাকা পাই তা পাইনি। এছাড়া লবণের দাম অনেক বেশি। আর মাল কিনে বেচার জায়গা পাইনি তাই ব্যবসা মন্দা।'

ঢাকায় ট্যানারি স্থানান্তর এবং বিদেশে চামড়া বিক্রি করতে না পারার অজুহাত দেখিয়ে  ট্যানারি মালিকরা টাকা আটকে রাখায় পাশাপাশি ট্যানারি মালিকদের  সিন্ডিকেটের কারণে চামড়ার দাম কম বলে মনে করেন স্থানীয় চামড়া সমিতির নেতা।

বগুড়ার জেলা চামড়া ব্যবসায়ী মালিক সমিতি সিনিয়র সহ সভাপতি আলহাজ শহিদুল ইসলাম বলেন, 'মালিকরা এর আগে যে চামড়া কিনেছে তা এখনও বেচতে পারেনি। যার ফলে তাদের অনেক টাকা পড়ে আছে। একটা চামড়ার দাম ২০০০ থেকে ৩০০০ টাকা। এসব দামের অনেক চামড়া তাদের কাছে স্টোক আছে। এখন যদি তারা কম দামে চামড়া কিনতে না পারে তাহলে ওই চামড়ার জন্য ক্ষতিগ্রস্ত হবে। তাই আমি মনে করি, অনেকটা পরিকল্পিতভাবে চামড়ার দাম তারা কমিয়ে রেখেছে।'

বগুড়ায় এবার ছাগলের চামড়া ২০ টাকা থেকে ৮০ টাকা এবং গরুর চামড়া ৪শ থেকে ৮শ টাকা পর্যন্ত কেনা বেচা হয়েছে। বগুড়ায় এবার প্রায় দেড় লাখ চামড়া কেনা বেচা হয়েছে।