SomoyNews.TV

Somoynews.TV icon বাংলার সময়

আপডেট- ১৯-০৫-২০১৮ ১১:০৮:৩২

বৈরী আবহাওয়ায় ক্ষতির মুখে ফেনীর কৃষক

feni-paddy-jpg-ed

ফেনীতে এবার বোরো মৌসুমে ধানের বাম্পার ফলন হলেও কৃষি শ্রমিকের তীব্র সংকটে সময় মতো ঘরে ফসল তুলতে পারছেন না কৃষকেরা।  একই কারণে শ্রমিকদের  পারিশ্রমিকও গুণতে হচ্ছে দ্বিগুণ। এদিকে বৈরী আবহাওয়ার কারণে মাঠের ফসল নিয়ে ক্ষতির মুখে পড়েছেন তারা।

ফেনীর কৃষি বিভাগের হিসেবে মতে, চলতি বোরো মৌসুমে ধানের আবাদ হয়েছে ৩০ হাজার ৩৫ হেক্টর। ফলনও হয়েছে লক্ষ্যমাত্রা ছাড়িয়ে প্রায় ১ লাখ ১৫ হাজার মেট্রিক টন। অথচ সময় গড়িয়ে গেলেও কর্তনের পরও এখন পর্যন্ত অর্ধেকের মতো ফসল মাঠেই পড়ে রয়েছে।

আবার মাঠের ফসল ঘরে তুলতে কৃষকদের দিতে হচ্ছে চড়া মূল্য। অন্যদিকে কৃষি বিভাগ মাঠে প্রদর্শনীর পরও সরকারের ভর্তুকিতে দেয়া ৯০ হাজার টাকায় ধান কাটা ও সাড়ে ৩ লাখ টাকায় ধান কাটা, মাড়াই এবং বস্তা বন্দি যন্ত্র নিতে কৃষকদের তেমন কোন আগ্রহ নেই।  

ফেনী সদর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা আবু নঈম মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন কৃষি শ্রমিক সংকট স্বীকার করে জানালেন, খামার যান্ত্রিকিকরণ প্রকল্পের আওতায় ৫০ শতাংশ ভর্তুকিতে কৃষি যন্ত্র দেয়ার ক্ষেত্রে সমিতি বা কৃষি ক্লাবগুলোকে অগ্রাধিকার দেয়া হয়।

কৃষি প্রকৌশল বিভাগের হিসেবে, যেখানে ধান কাটা, মাড়াই ও বস্তা বন্দি করতে একর প্রতি কৃষি শ্রমিকের পেছনে খরচ পড়ে ১০ থেকে ১২ হাজার টাকা। সেক্ষেত্রে যন্ত্র দিয়ে একই কাজ করতে খরচ পড়ে মাত্র ১ থেকে দেড় হাজার টাকা।

ফেনীর কৃষি বিভাগ মনে করে, কৃষকরা ধান কাটার রিপার ও এই কম্বাইন হারভেস্টারসহ নানা কৃষি যন্ত্র নির্ভর হলে তাদের শ্রম ও উৎপাদন খরচ দুটোই কমবে। বাড়বে লাভের পরিমাণ।