আপডেট
১৩-০৯-২০১৭, ১৬:২৭

ইরমার তাণ্ডবে ক্ষতিগ্রস্তদের ত্রাণ সহায়তার আশ্বাস

irma-situ
শক্তিশালী ইরমার তাণ্ডবে ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য ত্রাণ সহায়তা প্রদানের প্রতিশ্রুতি দিয়েছে নেদারল্যান্ড, ফ্রান্স ও যুক্তরাজ্য। হারিকেনের আঘাতে ধ্বংস হয়ে গেছে ফ্লোরিডার এক চতুর্থাংশ ঘর-বাড়ি। ঝড়ের তাণ্ডব থেকে রক্ষা পেতে এলাকা ছেড়ে যাওয়া বাসিন্দাদের চোখে মুখে হতাশা। হারিকেনের আঘাতে ফ্লোরিডা, সাউথ ক্যারোলাইনা ও জর্জিয়ায় মারা গেছে অন্তত ১৩ জন। ক্যারিবীয় অঞ্চলে ৪৩ জনের মৃত্যুর খবর জানানো হয় গণমাধ্যমে। এখনো অনেকে নিখোঁজ থাকায় মৃতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা কর্তৃপক্ষের।

শক্তিশালী হারিকেন ইরমা মৌসুমি ঝড়ে পরিণত হওয়ায় বিধস্ত বাড়ি-ঘরে ফিরতে শুরু করেছে ফ্লোরিডাবাসী। বন্যা, ভূমিধসের মতো ভয়াবহ দুর্যোগের আশঙ্কায় আগে থেকেই ফ্লোরিডা উপকূল থেকে বাসিন্দাদের নিরাপদে সরিয়ে নেওয়া হয়। এতে অনেক মানুষ প্রাণে বেঁচে গেলেও ধংস হয়ে গেছে অনেক ঘর-বাড়ি। বিছিন্ন অবস্থায় রয়েছে অনেক এলাকার বিদ্যুৎ সংযোগ।

স্থানীয় কয়েকজন বলেন, 'ফিরে এসে এমন অবস্থা দেখবো সত্যি ভাবিনি। তবে আমরা সবাই সুস্থ আছি এটাই অনেক বড় বিষয়। হারিকেনের তাণ্ডবে আমার বাড়ি ঘর ভেঙ্গে গেছে। পরিবার নিয়ে কোথায় উঠবো কিছুই বুঝতে পারছিনা।'

বিভিন্ন শহরের গুরুত্বপূর্ণ রাস্তাঘাট, ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে পানি ঢুকে পড়ায় বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে জনজীবন। ব্যবসায়ে দেখা দিয়েছে মন্দাভাব। যোগাযোগ ব্যবস্থা, বিদ্যুৎ সংযোগ এবং ঘর-বাড়ি পুননির্মানে পরিচ্ছন্নতার্মীদের পাশাপাশি কাজ করছে বাসিন্দারা। ক্ষতিগ্রস্ত ফ্লোরিডা পরিদর্শনে সেখানে ৩য় বারের মতো যাবেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট।

হারিকেনের প্রভাবে ব্যাপক ক্ষতিগ্রস্ত হয় সেন্ট মার্টিন দ্বীপের বিস্তীর্ণ এলাকা। খাদ্য, পানি, চিকিৎসার অভাবে দ্বীপটির বাসিন্দারা নাজুক অবস্থায় দিন পার করছে। এমন পরিস্থিতিতে প্রয়োজনীয় সব ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দিয়েছেন ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমান্যুয়েল ম্যাক্রোঁ। ক্ষতিগ্রস্ত সেন্টমার্টিন দ্বীপ পরিদর্শন শেষে সেখানে দ্রুত আর্থিক সহায়তা প্রদানের কথাও জানান তিনি।

ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমান্যুয়েল ম্যাক্রোঁ বলেন, 'ইরমার আঘাতে দ্বীপাঞ্চলে যে ক্ষতি হয়েছে, তা কাটিয়ে উঠতে প্রয়োজনীয় সব ব্যবস্থা নেয়া হবে। আমরা ত্রাণ পাঠানো শুরু করেছি আরো পাঠাবো। দ্বীপটি আগের অবস্থানে ফিরিয়ে নেওয়া সময় সাপেক্ষ হলেও আমরা পুনগঠনে সব রকম চেষ্টা চালাচ্ছি।'

ক্যারিবীয় অঞ্চলে সপ্তাহব্যাপী ইরমার ধ্বংসযজ্ঞে ৪০ জনের মৃত্যুর খবর জানায় গণমাধ্যম। ধংসস্তুপে পরিণত ক্যারিবীয় অঞ্চলে ব্রিটেন সবরকম সহায়তা দিতে প্রস্তুত বলে জানিয়েছে ব্রিটিশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

ব্রিটিশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, 'আমি ঐ এলাকাগুলো পরিদর্শন করেছি। সেখানকার পরিস্থিতি ভয়াবহ। ছবির মত সুন্দর দ্বীপগুলোকে আবার পুনগঠনে আমরা সব রকম সহায়তা প্রদান করবো। আগামিকাল ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে আনুষ্ঠানিকভাবে আর্থিক সহায়তার পরিমান ঘোষণা করবেন।'

এদিকে কিউবার হাভানায় ফ্লাইট বাতিল হওয়ায় প্রায় ৩ হাজার পর্যটক ভোগান্তির কবলে পড়েছেন। ইরমার তাণ্ডবে কিউবার বিভিন্ন চিড়িয়াখানায় মারা গেছে অনেক পশু-পাখি।




DMCA.com Protection Status

এই বিভাগের সকল সংবাদ

Contact Address

Nasir Trade Centre, Level-9,
89, Bir Uttam CR Dutta Road, Dhaka 1205, Bangladesh
Email: somoydigitalsomoynews.tv

Find us on

  Live TV DMCA.com Protection Status
উপরে