আপডেট
১২-০৮-২০১৭, ১১:০৫

পাইকারি বাজারে মসলা-চালের দাম উর্ধ্বমূখী

paikari-up-jpg-ed
রাজধানীর পাইকারি বাজারে মোটা চালের দাম অপরিবর্তিত থাকলেও কেজিপ্রতি ২ টাকা বেড়েছে নাজিরশাইল চালের দাম। সপ্তাহ ব্যবধানে প্রতিকেজিতে ১৫ থেকে ২৫ টাকা বেড়েছে সব ধরনের পেঁয়াজ, রসুন ও আদার দাম। জিরা ও সাদা এলাচের দামও উর্ধমূখী। বিক্রেতারা বলছেন, আমদানি কমে যাওয়ায় বেড়েছে মসলার দাম। সেইসঙ্গে মসুর ডালের দাম বাড়লেও স্থিতিশীল আছে অন্য ভোগ্যপণ্যের বাজার।
আমদানি শুল্ক কমানোয় মোটা চালের দামের উর্ধমূখী প্রবণতা নিয়ন্ত্রণে এলেও পাইকারি বাজারে সব ধরনের মসলার দাম উর্ধ্বমূখী

পাইকারি বাজারে সপ্তাহ ব্যবধানে বেড়েছে নাজিরশাইল চালের দাম। বিক্রি হচ্ছে মানভেদে ৬৫ থেকে ৬৮ টাকা কেজি। দেশি ২৮ ও মিনিকেট চাল বিক্রি হচ্ছে আগের দামেই প্রতিকেজি যথাক্রমে ৪৭ ও ৫৪ টাকায়। বিক্রেতারা বলছেন, নতুন মৌসুমের ধান না পাওয়া পর্যন্ত কমবে না নাজিরশাইল চালের দাম।

চালের বাজার কিছুটা স্থিতিশীল থাকলেও কোরবানি ঈদ সামনে রেখে বাড়তে শুরু করেছে পেঁয়াজের ঝাঁঝ। দুই সপ্তাহ আগের ২৫ টাকার দেশি পেঁয়াজের কেজি বাড়তে বাড়তে পৌঁছেছে ৪৮ থেকে ৫০ টাকায়। আমদানি করা ভারতীয় পেঁয়াজের কেজি ৪৫ থেকে ৪৭ টাকা। সাতদিনে কেজিতে ১৫ থেকে ২০ টাকা বেড়েছে দেশি এবং আমদানি করা রসুনের দামও। মানভেদে প্রতিকেজি বিক্রি হচ্ছে ৯০ থেকে ১২০ টাকা পর্যন্ত। আদার দাম ১৫ টাকা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৯০ থেকে ৯৫ টাকা কেজি।

পেঁয়াজ রসুনের মত মসলার বাজারও ঊর্ধমূখী। সপ্তাহ ব্যবধানে জিরা, সাদা এলাচ, গোলমরিচ কেজিতে বেড়েছে ১৫ থেকে ৫০ টাকা। তবে অপরিবর্তিত আছে জায়ফল, কাঠবাদাম, পেস্তার দাম।

পাইকারি বাজারে সাতদিনের ব্যবধানে অন্য ভোগ্যপণের দামে কোনো পরিবর্তন হয়নি। বাজারে চিনির কেজি ৫১ টাকা, আটা- ২১ টাকা, ময়দা ২৯ টাকা, খোলা সয়াবিন তেল প্রতিকেজি ৮৫ টাকা আর পামওয়েলের দাম পরছে ৭৪ টাকা কেজি।





DMCA.com Protection Status

এই বিভাগের সকল সংবাদ

Contact Address

Nasir Trade Centre, Level-9,
89, Bir Uttam CR Dutta Road, Dhaka 1205, Bangladesh
Email: somoydigitalsomoynews.tv

Find us on

  Live TV DMCA.com Protection Status
উপরে