• সদ্যপ্রাপ্তরাজধানীর জিগাতলায় ৫ তলা গার্মেন্টস ভবনে আগুন, নিয়ন্ত্রণে কাজ করছে ফায়ার সার্ভিসের ৬টি ইউনিট

দামেস্কে পানি সরবরাহের বিষয়ে সমঝোতার দাবি সরকারের

Update: 2017-01-12 16:15:11, Published: 2017-01-12 16:15:12
syria-crisis


সিরিয়ার রাজধানী দামেস্কের প্রধান পানি সরবরাহ ব্যবস্থা সংস্কারের বিষয়ে বিদ্রোহীদের সঙ্গে সরকারি বাহিনীর প্রাথমিক সমঝোতা হওয়ার কথা জানিয়েছেন দামেস্কের প্রাদেশিক গর্ভনর। তবে চুক্তির বিষয়টি অস্বীকার করে বিদ্রোহীরা জানায়, তারা কোন অবস্থাতেই সরকারি সেনাদের ওয়াদি বারাদা শহরে প্রবেশ করতে দেবে না।

সরকারি বাহিনী ও বিদ্রোহীদের অব্যাহত সংঘর্ষের কারণে ২৯ ডিসেম্বর ওয়াদি বারাদা থেকে দামেস্কে পানি সরবরাহের প্রধান লাইনটি ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এতে বিশুদ্ধ পানি সংকটে পড়েছে অন্তত ৫৫ লাখ মানুষ।

সিরিয়ায় অস্ত্রবিরতির মধ্যে হোমস প্রদেশের রাস্তান শহরে বিদ্রোহীদের অবস্থান লক্ষ্য করে বিমান হামলা চালায় সরকারি বাহিনী। একইচিত্র দামেস্কের নিকটবর্তী ওয়াদি বারাদা প্রদেশে। রয়টার্সের ফুটেজে দেখা যায়, প্রদেশটির বাসিমা গ্রামে হেলিকপ্টার থেকে ব্যারেল বোমা নিক্ষেপের পাশাপাশি আইন আল ফিজা গ্রামে প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা জোরদার করেছে সরকারি বাহিনী। এ অবস্থায় প্রদেশটির ১২টি গ্রাম থেকে বেসামরিক নাগরিকদের পাশাপাশি বিদ্রোহীরা নিরাপদে সরে যেতে শুরু করেছে। গ্রাম ছাড়তে সীমান্ত চৌকিতে গত ২৪ ঘন্টায় নাম নিবন্ধন করেছেন অন্তত ৫শ' জন।

ওয়াদি বারাদা শহর থেকে দামেস্কের পানি সরবরাহ ব্যবস্থা সংস্কারের বিষয়ে সম্মত হয়েছে সিরিয়ার সরকারি ও বিদ্রোহী বাহিনী। এ বিষয়ে প্রাথমিক চুক্তি স্বাক্ষরের কথা জানান দামেস্কের প্রাদেশিক গভর্নর। দামেস্কের প্রধান পানির উৎসটি সংঘাতের কারণে ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ায় অন্তত ৫৫ লাখ মানুষ বিশুদ্ধ পানি সংকটে পড়েছে বলেও জানান তিনি।

আহমেদ হৌমাম হায়দার, 'লাখ লাখ মানুষের স্বার্থে এই সরবরাহ ব্যবস্থাটি সংস্কার করা প্রয়োজন। রেড ক্রিসেন্ট আপাতত যে পানি সরবরাহ করছে তা এতো মানুষের চাহিদা পূরণে যথেষ্ট নয়। এজন্য দ্রুত ওইসব এলাকায় পানির পাইপ ও পাম্প বসাতে হবে।'

তবে সরকারি বাহিনীর সঙ্গে এ ধরণের কোন চুক্তি হয়নি বলে সাফ জানিয়েছে দিয়েছে বিদ্রোহীরা। বিদ্রোহী নিয়ন্ত্রিত ওয়াদি বারাদায় কোন অবস্থাতে সরকারি সেনাদের প্রবেশ করতে দেয়া হবে না বলে তারা হুঁশিয়ারি করে।

রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন সিরিয়া থেকে তার সেনা সরিয়ে নেয়ার ঘোষণা দিলেও রুশ সেনা সরিয়ে নেয়ার দাবি করলেও বাস্তবে আরো বহু সংখ্যক সেনা মোতায়েন করা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন এক মার্কিন কর্মকর্তা। ফক্স নিউজকে দেয়া এক সাক্ষাতকারে তিনি বলেন, চলতি সপ্তাহে সিরিয়া উপকূলে মস্কো আরো ৪টি যুদ্ধবিমান মোতায়েন করেছে। ইরান থেকে জ্বালানি সংগ্রহ শেষে বিমানগুলো বিদ্রোহীদের ওপর হামলা চালায় বলে অভিযোগ করেন তিনি। তবে এসব অভিযোগই অস্বীকার করেছে মস্কো।

এদিকে, উত্তরাঞ্চলীয় আলবাব শহরে জঙ্গিগোষ্ঠী আইএস এর সঙ্গে তুমুল সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েছে সিরীয় বিদ্রোহী ও তুর্কি সেনারা। ওই শহরে গত এক মাস ধরে আইএস বিরোধী অভিযান চালিয়ে আসছে আঙ্কারা। এদিকে আলেপ্পো শহরে জঙ্গিগোষ্ঠী আইএস এর একটি ঘাঁটিতে তল্লাশি চালিয়ে সিরীয় সেনারা সৌদি আরবের তৈরি বিপুল পরিমান রাসায়নিক অস্ত্র জব্দ করে। সেখানে সালফার, ক্লোরিনের মতো প্রাণঘাতি রাসায়নিকও জব্দ করা হয়।




Update: 2017-01-12 16:15:11, Published: 2017-01-12 16:15:12

আপনার মন্তব্য লিখুন

পাঠকের মন্তব্য ( )


More News
  


আরও সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ



সরাসরি যোগাযোগ

৮৯, বীর উত্তম সি. আর. দত্ত রোড, ঢাকা ১২০৫, বাংলাদেশ।
ফ্যাক্স: +৮৮০২ ৯৬৭০০৫৭, ইমেইল: info@somoynews.tv
উপরে en.Somoynews.tv