খেলার সময় ডেস্ক
আপডেট
১১-১০-২০১৮, ০৪:০৬
খেলার সময়

লিটনের ডাবল সেঞ্চুরির পরও পিছিয়ে রংপুর

ncl-day-3
তৃতীয় দিনেও অব্যাহত আছে ব্যাটসম্যানদের দাপট। রাজশাহীতে লিটন দাসের রেকর্ড গড়া ডাবল সেঞ্চুরির পরও ১১৯ রানে পিছিয়ে আছে রংপুর। খুলনায় জিয়াউর রহমানের সেঞ্চুরিতে বরিশালের বিপক্ষে ৫০ রানে এগিয়ে আছে স্বাগতিকরা। আর দ্বিতীয় স্তরের ম্যাচে ফতুল্লায় মেট্রোর বিপক্ষে এখনো ১৩১ রানে পিছিয়ে আছে ঢাকা বিভাগ। কক্সবাজারে বৃষ্টিবিঘ্নিত ম্যাচে ৯ উইকেটে ২৮২ রান করেছে চট্টগ্রাম।

 

রাজশাহীতে তৃতীয় দিনের শুরুটা ছিলো স্বাগতিক ব্যাটসম্যানদের। আগের দিনের দুই সেঞ্চুরিয়ান শান্ত এবং মিজানুরের দেখানো পথেই দুর্দান্তভাবে ব্যাট চালাতে থাকেন জুনায়েদ সিদ্দিকী। সঙ্গ দেন ফরহাদ হোসেন। ফিফটি করে ফরহাদ আউট হলেও অন্য প্রান্তে অবিচল ছিলেন জুনায়েদ। জহরুলও ব্যাক্তিগত ৫৫ রানে আউট হলে চালিয়ে খেলতে থাকেন তিনি। পরে, তার ক্যারিয়ারের ১৪তম সেঞ্চুরি পূর্ণ হলে ইনিংস ঘোষণা দেয় রাজশাহী বিভাগ।

এরপরের পুরো গল্প জুড়েই শুধু লিটন দাস। মাঠের চারপাশে স্ট্রোকের ফুলঝুড়ি ছোটান তিনি। তুলে নেন ক্যারিয়ারের ২য় ডাবল সেঞ্চুরি। মাত্র ১৪০ বলে বাংলাদেশের হয়ে প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে গড়েন ক্রিকেটের দ্রুততম ডাবল সেঞ্চুরির রেকর্ড। যেখানে ৪২টি চারের সঙ্গে রয়েছে ৪টি ছক্কার মার। দিনের শেষভাগে এসে দলীয় ৩১৭ ও ব্যক্তিগত ২০৩ রানে আউট হন লিটন। এরপর আর কোন উইকেট না হারিয়ে দিন শেষ করে রংপুর। এখনো ১১৯ রানে পিছিয়ে আছে তারা।

খুলনায় ব্যর্থ একটা দিন কাটিয়েছে বরিশালের বোলাররা। আগের দিনের দুই অপরাজিত ব্যাটসম্যান জিয়া এবং আফিফের জুটিতে নাকাল হতে হয়েছে তাদের। দিনের শুরু থেকেই দুর্দান্ত ব্যাটিং করতে থাকে এই জুটি। রাব্বি-সোহাগ গাজী-মনিরদের কোন প্রচেষ্টাতেই হার মানেন নি তারা। প্রথম শ্রেনির ক্যারিয়ারের অষ্টম সেঞ্চুরি তুলে নেন জিয়াউর রহমান।

তবে এরপরই হয় ছন্দপতন। মোসাদ্দেকের বলে বোল্ড হয়ে প্যাভিলিয়নে ফেরেন জিয়া। আর ৮১ রানে অপরাজিত থেকে দিন শেষ করেছে আফিফ হোসেন ধ্রুব। বরিশালের বিপক্ষে ৫০ রানে এগিয়ে আছে স্বাগতিকরা।


ফতুলায় ৪ উইকেটে ৩১২ রান নিয়ে দিন শুরু করে ঢাকা মেট্রো। আগের দিনের সঙ্গে ৩ রান যোগ করে ১৮৯ রানে ফিরে যান সাদমান। দাঁড়াতে পারেন নি মেহরাব জুনিয়রও। ৩৮৭ রানেই অলআউট হয় তারা।

জবাব দিতে নেমে আবারো শুরুতেই ধাক্কা খায় ঢাকা বিভাগ। ৪ রানেই সাজঘরে ফিরেছেন রনি তালুকদার। আর দিনের শেষ বলে আউট হয়েছেন আব্দুল মজিদ। এখনো ১৩১ রানে পিছিয়ে আছে ঢাকা বিভাগ।

অন্যদিকে কক্সবাজারে সিলেটের বিপক্ষে বৃষ্টিবিঘ্নিত ম্যাচে ৯ উইকেট হারিয়ে ২৮২ রানে দিন শেষ করেছে চট্টগ্রাম বিভাগ। 




DMCA.com Protection Status

এই বিভাগের সকল সংবাদ

Contact Address

Nasir Trade Centre, Level-9,
89, Bir Uttam CR Dutta Road, Dhaka 1205, Bangladesh
Email: somoydigitalsomoynews.tv

Find us on

  Live TV DMCA.com Protection Status
উপরে