আপডেট
১১-০৮-২০১৮, ০২:৩২

জাহিদ-হিমেলকে দলে ভিড়িয়েছে আরামবাগ

aram-foot
এবার লিগেও র‌্যাঙ্কিংয়ে উন্নতি করতে চায় স্বাধীনতা কাপের ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন আরামবাগ ক্রীড়া সংঘ। সেই লক্ষ্যে দলে ভিড়িয়েছে দেশের অন্যতম সেরা দুই সিনিয়র ফুটবলার জাহিদ হোসেন ও হিমেলকে। তাদের পেয়ে দলে ভারসাম্য এসেছে বলে মত কোচ মারুফুল হকের। আর ক্লাবের সাম্প্রতিক নৈপুণ্য আর কোচ মারুফুল হকের প্রতি অনুপ্রাণিত হয়ে আরামবাগে নাম লিখিয়েছেন জাতীয় দলের সাবেক এই দুই ফুটবলার।
 

কোচ মারুফুল হকের অধীনে গেল ফেব্রুয়ারিতে স্বাধানীতা কাপে ফাইনালে হট ফেভারিট চট্টগ্রাম আবাহনীকে হারিয়ে প্রথমবারের মতো শিরোপা জেতে আরামবাগ ক্রীড়া সংঘ। টুর্নামেন্টে ভাল করায় এবার লিগেও ভাল করার নজর দিচ্ছে মতিঝিলের ক্লাবটি।

তাই তো তারুণ্য নির্ভর দলের অধিকাংশ খেলোয়াড়কে ধরে রেখেছে আরামবাগ। পাশাপাশি দলে ভারসাম্য আনতে ভিড়িয়েছে সিনিয়র দুই ফুটবলার।

জাহিদ হোসেন। সবশেষ চট্টগ্রাম আবাহনীর হয়ে খেললেও এবার চুক্তি করেছেন আরামবাগের সঙ্গে। স্বাধীনতা কাপে চ্যাম্পিয়ন হওয়ায়, এই দলের প্রতি নিজের আগ্রহ। পাশাপাশি কোচ মারুফুল হককে বস হিসেবে বেশ পছন্দ এই স্ট্রাইকারের।


আরামবাগের স্ট্রাইকার জাহিদ হোসেন বলেন, তারা এখন বর্তমান। সেই সাথে এখানে মারুফুল হকের মতো ভাল মানের কোচ রয়েছে। সেই বিষয়ের জন্য এখানে আসা হয়েছে। তবে, খেলার জন্য একভাল মানের কোচ খুবই প্রয়োজন।


জাতীয় দল বলতেই কেমন জানি আক্ষেপ জাহিদের কণ্ঠে। তবে, এসবে নজর না দিয়ে ভাল করতে চান ক্লাবের হয়ে।

জাহিদ আরো বলেন,  ক্লাবের হয়ে ভাল খেললে দলে ডাক আসবে। এখন সেই দিকে তাকাতে চাই না।

এদিকে, গেল বছর ইনজুরির কারণে খেলতে পারেন নি ফুটবল মৌসুমে। তবে, এবার স্বাধীনতা কাপে চ্যাম্পিয়ন ও কোচ মারুফুল হক বলেই আরামবাগের প্রতি অনুপ্রাণিত হয়েছেন গোলরক্ষক হিমেলও।

 আরামবাগের গোলরক্ষক হিমেল বলেন, আমরা ভাল কোচের নিয়ন্ত্রণে রয়েছি, সেই সাথে দুই মাস সময় রয়েছে। আশা করি ভাল কিছু করতে পারব।

সব শেষ লিগে নিজেরদের অবস্থান ছিল ৬ষ্ঠ। এবার লক্ষ্য র‌্যাঙ্কিংয়ে উন্নতি করা। তাই, দল নিয়ে আগে ভাগেই অনুশীলন শুরু করেছে আরামবাগ। আগের দলে অভিজ্ঞতার ঘাটতি ছিল। তা পূরণ করতে জাহিদ ও হিলেমকে দলে নেয়া। দলের জন্য সেটা বোনাস হিসেবে দেখছেন কোচ।


আরামবাগের কোচ মারুফুল হক বলেন, দলের অভিজ্ঞ খেলোয়াড়ের ঘাটতি ছিল, সেই জন্যে তাদের দলে নেওয়া হয়েছে। এছাড়াও গত মৌসুমে যেখানে লীগ শেষ করেছি, এই মৌসুশে আর একটু উপরে থাকতে চাই।

এএফসির নিয়মানুযী প্রথমবারের মতো এশিয়া কোটায় একজনসহ মোট চার জন বিদেশি খেলোয়াড় খেলাতে পারবে দলগুলো। দেশের ছয়টি ভেন্যুতে অনুষ্ঠিত হবে এই ফুটবল লিগ।




DMCA.com Protection Status

এই বিভাগের সকল সংবাদ

Contact Address

Nasir Trade Centre, Level-9,
89, Bir Uttam CR Dutta Road, Dhaka 1205, Bangladesh
Email: somoydigitalsomoynews.tv

Find us on

  Live TV DMCA.com Protection Status
উপরে