খেলার সময় ডেস্ক
আপডেট
১৬-০৪-২০১৮, ২১:১৪

মাশরাফি-সাকিবদের বেতন বাড়ছে, তবে...

mash-shakib
সাধারণত বছরের শুরুতেই ক্রিকেটারদের সঙ্গে কেন্দ্রীয় চুক্তি করে বিসিবি। যদিও গতবছরের চুক্তিটি হয়েছিলো এপ্রিলে। এবছর প্রায় চার মাস পেরিয়ে গেছে কিন্তু এখনও এ বিষয়ে সিদ্ধান্তে আসতে পারেনি দেশের ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থাটি। তবে বরাবরের মতো এবছরও নাকি ক্রিকেটারদের বেতন বাড়বে। তবে ছোট হয়ে যাবে কেন্দ্রী চুক্তির বহর। অর্থাৎ কেন্দ্রীয় চুক্তিতে থাকা ক্রিকেটারের সংখ্যা কমে যাবে।
 

এ বিষয়ে একটা খসড়া তৈরি করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। সেখানে ক্রিকেটারদের জন্য খুব বেশি সু-খবর নেই বললেই চলে। কারণ, ২০১৭ সালের চুক্তিতে থাকা ১৬জন ক্রিকেটারের বদলে এবার একজন কমিয়ে আনা হবে ১৫ জনে। সোমবার মিরপুরে বিসিবি কার্যালয়ে এমনটাই জানিয়েছেন ক্রিকেট অপারেশন্স চেয়ারম্যান আকরাম খান।

তিনি বলেন, 'আমরা সবকিছু চিন্তা করে এবং সবার সঙ্গে আলাপ-আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেবো। তবে বেশি না (চুক্তিতে) বেশি না থেকে কম থাকলে সেটা ভালো হবে।'

গত বছর ক্রিকেটারদের বেতন ও ম্যাচ ফি প্রায় দ্বিগুণ বাড়িয়েছিলো বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। আজ আকরাম খান জানালেন, এই এপ্রিলেও বেতন বাড়ছে ক্রিকেটারদের।

পরশু বিসিবির পরিচালনা পরিষদের সভায় খেলোয়াড়দের বেতন বাড়ানোর প্রস্তাব করবে ক্রিকেট পরিচালনা কমিটি। তবে কত শতাংশ বেতন বাড়ানো হবে সেটি অবশ্য বলতে পারেননি আকরাম খান, 'গতবার আমরা প্রায় ১০০ শতাংশ বাড়িয়েছিলাম। ধীরে ধীরে আরও বাড়াব।'


খেলোয়াড়দের বেতন প্রায় প্রতিবছরই কিছু কিছু করে বাড়িয়ে আসছে বিসিবি। তবে গতবার ক্রিকেটারদের দাবির পরিপ্রেক্ষিতে বেতনের অঙ্কে বড় পরিবর্তন আনে বিসিবি। মাশরাফি-সাকিবদের মতো 'এ প্লাস' ক্যাটাগরিতে থাকা খেলোয়াড়দের বেতন আড়াই লাখ থেকে বাড়িয়ে করা হয় ৪ লাখ টাকা। 'এ' ক্যাটাগরিতে থাকা মাহমুদউল্লাহর ২ লাখ থেকে বাড়িয়ে ৩ লাখ, 'বি' ক্যাটাগরিতে ইমরুল কায়েস, মুমিনুল হক, সাব্বির রহমান ও সৌম্য সরকারের দেড় লাখ থেকে বাড়িয়ে ২ লাখ, 'সি' শ্রেণিতে রুবেল হোসেন, তাসকিন আহমেদ, মোস্তাফিজুর রহমান ও মোসাদ্দেক হোসেনদের ১ লাখ থেকে বাড়িয়ে দেড় লাখ এবং 'ডি' শ্রেণিতে নতুন অন্তর্ভুক্ত হওয়া ক্রিকেটারদের বেতন ৭৫ হাজার থেকে বাড়িয়ে করা হয় ১ লাখ টাকা।

তবে এবছর বেতন গতবছরের মতো অতটা বাড়ানোর সম্ভাবনা কম।

বাংলাদেশের হিসেবে খেলোয়াড়দের বেতনের অঙ্কটা বেশ বড়। তবে অন্যান্য দেশের সঙ্গে তুলনা করে এ বিষয়ে অনেক ক্রিকেটারের মধ্যে অসন্তুষ্টি আছে বলে শোনা যায়। তবে অন্য বোর্ডের সঙ্গে তুলনা করতে চান না আকরাম খান।

'আপনারা যদি শুধু বোর্ডের বেতন নিয়ে আলাপ করেন তাহলে বাংলাদেশে ঘরোয়া লিগে খেলোয়াড়রা যেভাবে টাকা পায় তেমনটা কিন্তু অন্যান্য দেশে অনেক কম। সেটাও কিন্তু মাথায় রাখা উচিৎ... যে খেলোয়াড়রা এসব কথা বলে। গত বছর আমরা প্রায় ১০০ ভাগ বাড়িয়েছি। সেটা আমাদের মাথায় আছে। আস্তে আস্তে আরও বাড়াবো। তবে অন্য দেশের সঙ্গে তুলনা করলে সেটা ঠিক হবে না।'

তবে, এ সব ব্যাপারে বুধবার বিসিবি'র বোর্ড সভায় আনুষ্ঠানিক সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।




DMCA.com Protection Status

এই বিভাগের সকল সংবাদ

Contact Address

Nasir Trade Centre, Level-9,
89, Bir Uttam CR Dutta Road, Dhaka 1205, Bangladesh
Email: somoydigitalsomoynews.tv

Find us on

  Live TV DMCA.com Protection Status
উপরে