• এইমাত্র পাওয়ামৌলভীবাজারের বড়হাট ও ফতেহপুরে জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে দুইটি বাড়ি ঘিরে রেখেছে কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিট...
  • এইমাত্র পাওয়াবড়হাটের ওই বাড়ির আশেপাশে গুলির শব্দ, পুলিশকে লক্ষ্য করে গ্রেনেড নিক্ষেপ

ষাটোর্ধ বয়সের ৯০০ কয়েদির সাজা মওকুফের আবেদন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে

Update: 2017-03-05 08:26:04, Published: 2017-03-05 08:26:05
age-60-copy

জীবনের শেষ সময়টুকু পরিবার পরিজনের সঙ্গে কাটাতে সাজা মওকুফের মানবিক আবেদন করেছে ষাটোর্ধ বয়সের নয় শতাধিক কয়েদি। দেশের ৬৮টি কারাগারে ২০ বছরেরও বেশি সময় ধরে থাকা বন্দিদের আবেদন জমা পড়েছে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে। কারা কর্তৃপক্ষ বলছে, আইনি দিক থেকে তাদের মুক্তির বিষয়টি বিবেচনাধীন। সিনিয়র আইনজীবী ও মানবাধিকার কমিশন বলছে, মানবিকতার স্বার্থে, নতুন জীবনে ফিরে যেতে তাদের এ সুযোগ দেয়া যেতেই পারে।

অপরাধের দায়ে ২০ বছরেরও বেশি সময় ধরে কারাগারে আছেন এমন অনেক বন্দিই জীবন সায়াহ্নে এসে ফিরতে চান পরিবার-পরিজনের কাছে। ২০ বছর কারাভোগ শেষ হয়েছে এ ধরনের ৯ শতাধিক ষাটোর্ধ বয়সের বন্দি মুক্তির আবেদন করেছে সরকারের কাছে। মুক্তির ব্যবস্থা নিতে কয়েকজন বন্দি চিঠিও দিয়েছেন প্রধান বিচারপতির দপ্তরে।

সিনিয়র আইনজীবীরা বলছেন, নতুন করে অপরাধ করার ক্ষমতা যাদের নেই তাদের ছেড়ে দেয়া উচিৎ। একই মত মানবাধিকার কমিশনেরও। ব্যারিস্টার শফিক আহমেদ বলেন, 'স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ইচ্ছা করলে এটা গ্রহণ করতে পারে এবং জেল অথরিটিকে এমন নির্দেশনা দিলে তারা বেরিয়ে আসতে পারে। আমার মনে হয় এটা ভালো উদ্যোগ হবে।'

জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের চেয়ারম্যান কাজী রিয়াজুল হক বলেন, 'ষাট-সত্তর বছর বয়সে যে ব্যক্তি মৃত্যুর জন্য দিন গুনছে। জেলখানাতে বসে পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ পড়ছে সে কাকে ভয়ভীতি দেখাবে। তাকে তো রাখার কোন যুক্তি নাই।' কমিশন চেয়ারম্যান জানান, শুধু ষাটোর্ধ বয়সের বন্দি নয়, বিনাবিচারে কারাগারে আটক বয়োবৃদ্ধদেরও জামিনের ব্যবস্থা করতে কাজ চলছে।

তিনি বলেন, 'জেলা লিগ্যাল এইড কমিটির সঙ্গে আমরা একটি সমঝোতা করবো। তারা এবং আমরা যতদূর সম্ভব কেসগুলোকে আদালতের সামনে উপস্থাপন করবো।' এদিকে, কারা মহাপরিদর্শক বলছেন, এরই মধ্যে বয়স্ক কয়েদিদের আবেদন নিয়ে কাজ শুরু করেছেন তারা।

কারা মহাপরিদর্শক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল সৈয়দ ইফতেখার উদ্দিন বলেন, 'অপরাধের ধরণ, তার বয়স সবকিছু বিবেচনা করে যদি মনে হয় যে, সে সমাজের জন্য বিপজ্জনক না তাহলে সরকার তাকে ছেড়ে দিতে পারে। প্রায় নয়শো বন্দী আছেন যাদের দরখাস্ত এই মুহূর্তে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবেচনাধীন আছে।' তবে মুক্তি দেয়ার ক্ষেত্রে কয়েদির শারীরিক সক্ষমতা এবং মামলার দিকটি বিবেচনা করা হবে বলেও জানান তিনি।




Update: 2017-03-05 08:26:04, Published: 2017-03-05 08:26:05

আপনার মন্তব্য লিখুন

পাঠকের মন্তব্য ( )


More News
  


আরও সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ


সর্বাধিক পঠিত (সাম্প্রতিক)


Contact Address

89, Bir Uttam CR Dutta Road, Dhaka 1205, Bangladesh.
Fax: +8802 9670057, Email: info@somoynews.tv
উপরে en.Somoynews.tv