রাবিতে অনুষ্ঠিত হলো তিনদিনব্যাপী একুশে বইমেলা

Update: 2016-02-28 16:33:18, Published: 2016-02-28 16:33:18
ru-book-fair-photo-27-02-20
শব্দহীন ভাষায় সুন্দরের গান শোনায় বই! বই প্রেমীদের সারা বছরের অপেক্ষা থাকে প্রাণের বইমেলার জন্য। বইমেলা তাদের জন্য যেন সুখের আগমনী বার্তা নিয়ে আসে। জ্ঞান পিপাসুদের তৃষ্ণা মেটাতে বাড়তি খোরাকের যোগান দিয়ে থাকে বই। তাই প্রতিবছর ফেব্রুয়ারি মাসের জন্য অধীর আগ্রহে অপেক্ষা তাদের।

মেলায় প্রকাশিত নতুন বইয়ের গঁন্ধে বই প্রেমীদের আগ্রহটা যেন বেড়ে যায় কয়েকগুণ। লেখক এবং পাঠকদের এক মধুর মিলনকেন্দ্র হলো বইমেলা। খুব সহজেই প্রিয় লেখকদের সান্নিধ্যে আসতে পারেন পাঠকেরা।অনেকেই আবার প্রিয় লেখকের সাথে প্রিয় মুহূর্তটুকু ফ্রেমবন্দী করে রাখতে ভোলেন না।

ঢাকায় অমর একুশে গ্রন্থমেলা যখন শেষ পর্যায়ে ঠিক সেই মূহুর্তে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের বই প্রেমিদের জন্য আনন্দ বার্তা নিয়ে এলো বিশ্ববিদ্যালয় পাঠক ফোরাম। ছোটো পরিসরে হলেও আনন্দের জোয়ার এনে দিয়েছে এখানকার বই পাগলদের জন্য।

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে পাঠক ফোরাম ‘একুশে বইমেলার-২০১৬’ আয়োজন করেছে। ২৬ ফেব্রুয়ারি বিশ্ববিদ্যালয়ের পাঠক ফোরাম চত্বরে শুরু হয় এই মেলা।মেলার উদ্বোধন করেন উপাচার্য অধ্যাপক মুহম্মদ মিজানউদ্দিন। এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক চৌধুরী সারওয়ার জাহান, পাঠক ফোরামের প্রতিষ্ঠাতা আরিফ হাসনাত ও সময় টিভির বার্তা প্রধান তুষার আবদুল্লাহ।



উদ্বোধন শেষে মেলা পরিদর্শন করে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক মুহম্মদ মিজানউদ্দিন সাংবাদিকদের বলেন, বই শিক্ষার প্রধান বাহন। বই ছাড়া শিক্ষার কথা কল্পনাই করা যায় না। বিশ্ববিদ্যালয় পাঠক ফোরাম বই মেলার যে উদ্যোগ নিয়েছে তা সত্যিই যুগান্তকারী পদক্ষেপ।

পাঠক ফোরাম আয়োজিত এ মেলায় অংশ নিয়েছে ১১টি স্টল। এর মধ্যে বই বিতান, বুকস ভ্যালি, শিক্ষক-কর্মকর্তা লেখক স্টল উল্লেখযোগ্য। এছাড়া বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্র প্রদর্শনী ও সদস্য সংগ্রহের উদ্দেশ্যে স্টল দিয়েছে। তবে মেলায় সময় টিভির বার্তা প্রধান তুষার আব্দুল্লাহ’র লেখা বই নিয়েই রয়েছে একটি স্টল । যেখানে এ বছর লেখা তার সবগুলো বই পাওয়া যাচ্ছে। এ মেলার বিষয়ে জানতে চাইলে, খুব ভালো সাড়া পাচ্ছেন বলে জানান তিনি।

স্টলগুলোতে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক বই ও আত্মজীবনীমূলক বই ছাড়াও বিভিন্ন ধরনের বই রয়েছে। তবে মুক্তযুদ্ধবিষয়ক বইগুলো বেশি বিক্রি হচ্ছে বলে আয়োজকরা জানান। এর মধ্যে বঙ্গবন্ধুর অসমাপ্ত আত্মজীবনী বইটি বেশি বিক্রি হচ্ছে। এদিকে পথশিশুদের মেধা বিকাশে কাজ করছে এমনি একটি সেচ্ছাসেবী সংগঠন স্বপ্নচূড়া মেলায় একটি স্টল দিয়েছে। স্বপ্নচূড়া মূলত একটি পত্রিকা। যেখানে স্থান পেয়েছে পথশিশুদের নিয়ে বিভিন্ন লেখা ও পথশিশুদের চিত্রকর্ম।

এদিকে, পুরো মেলায় তরুণের সমারোহ চোখে পড়ার মতো। কথা হয় মেলায় ঘুরতে আসা এক শিক্ষার্থীর সাথে। ভালো সাংবাদিক হওয়ার ইচ্ছে থেকেই গণমাধ্যম বিষয়ক বইগুলোর প্রতি তার আগ্রহ বেশি। ঢাকায় একুশে গ্রন্থমেলায় আসতে না পারলেও পাঠক ফোরাম আয়োজিত এই বইমেলায় তার পছন্দসই বই কেনার সুযোগ হয়েছে বলে জানান গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী আলী ইউনুস।

এছাড়া মেলায় আশানুরূপ সাড়া পেয়ে সন্তুষ্টি প্রকাশ করেন বইমেলার সমন্বয়ক ও ফোরামের সাবেক সভাপতি আশিকুর রহমান তন্ময়। আশানুরূপ সাড়া পাওয়ায় ২৭ ফেব্রুয়ারি মেলা শেষ হওয়ার কথা থাকলেও মেলার সময়সীমা বাড়িয়ে তিনদিন করা হয়।

Update: 2016-02-28 16:33:18, Published: 2016-02-28 16:33:18

আপনার মন্তব্য লিখুন

পাঠকের মন্তব্য ( )


More News
  


আরও সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ



সরাসরি যোগাযোগ

৮৯, বীর উত্তম সি. আর. দত্ত রোড, ঢাকা ১২০৫, বাংলাদেশ।
ফ্যাক্স: +৮৮০২ ৯৬৭০০৫৭, ইমেইল: info@somoynews.tv
উপরে en.Somoynews.tv