বিপিএল শিরোপা জয়: মাশরাফির তিন, কুমিল্লার প্রথম

Update: 2015-12-15 22:40:52, Published: 2015-12-15 22:40:53
comilla-champ


বিপিএলের তৃতীয় আসরের শিরোপা জিতেছে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। টান টান উত্তেজনায় ঠাসা ফাইনালে অলক কাপালির ব্যাটিং দৃঢ়তায় বরিশালকে ৩ উইকেটে হারিয়েছে কুমিল্লা। টস হেরে আগে ব্যাট করতে নেমে ৪ উইকেটে ১৫৬ রান সংগ্রহ করে বরিশাল। জবাবে, ব্যাট করতে নেমে ইনিংসের শেষ বলে ৭ উইকেট হারিয়ে জয়ের লক্ষ্যে পৌঁছে যায় কুমিল্লা। ম্যাচ সেরা হয়েছেন ভিক্টোরিয়ান্সের অলক কাপালি ও আসর সেরা হয়েছেন আসহার জাইদি।

মাশরাফির তিন। কুমিল্লার প্রথম। শেষ বলের উত্তেজনায় হাসলো কুমিল্লা। বিপিএলের শিরোপাল্লাস ভিক্টোরিয়ান্সের। টি টোয়েন্টি মানেই উত্তেজনাকর সমাপ্তি। ফাইনালে যেন তার ষোলকলা পূর্ণ হলো। কাগজে কলমে সেরা দল না হলেও, টুর্নামেন্টের শুরু থেকেই দুর্দান্ত পারফরমেন্স ছিল কুমিল্লার। সেই ধারা অব্যাহত ফাইনালেও।

এর আগে অবশ্য বরিশালের দেয়া ১৫৭ রানের টার্গেট কুমিল্লার জন্য কঠিন মনে হচ্ছিলো না। ইমরুলের ব্যাটে রানের ফোয়ারা অব্যাহত। তবে ব্যর্থতায় বৃত্তেই লিটন। টানা ২য় অর্ধশতক তুলে নিয়ে, টুর্নামেন্টের সর্বোচ্চ রানের মালিকের আসনটাও নিজের করে নেয়ার দিকে ভালোভাবেই এগুচ্ছিলেন ইমরুল। কিন্তু পর পর দুই ওভারে ইমরুল ও শেহজাদকে ফিরিয়ে বরিশালকে লড়াইয়ে ফেরান অধিনায়ক মাহমুদুল্লাহ।

আসহার জাইদিও দ্রুত ফিরে গেলে বাড়তে থাকে কুমিল্লার আস্কিং রেট। সাথে বাড়তে থাকে ম্যাচে উত্তেজনা। অধিনায়ক ম্যাশ এদিন দেখাতে পারেননি কোনো ঝলক। কিন্তু অভিজ্ঞ অলক কাপালির বীরোচিত ব্যাটিংয়ে প্রথম আসরেই বাজিমাত কুমিল্লার।

এর আগে কুমিল্লার সাথে আগের দুই দেখাতে হারা বরিশাল, টস হেরে ব্যাট করতে নেমে ওপেনিং  খুব একটা সুবিধা করতে পারেনি। উদ্বোধনীতে ১৯ রান করা প্রসন্না ও মেহেদির জুটি ভাঙ্গেন কুমিল্লার আনসাং হিরো আসহার জাইদি।

কিন্তু এরপরই প্রসন্নার ব্যাটে ঝড়। চার-ছক্কার ফুলঝুরি মিরপুরে। কিন্তু বল হাতে নিয়ে প্রথম ওভারেই সেই ঝড় থামান ড্যারেন স্টিভেন্স। আগের ম্যাচের নায়ক সাব্বির এদিন ঢাকা নিজের ছায়ায়। ১৯ বলে ৯ রান করে আউট হবার পর, মাহমুদুল্লাহ-নাফিস জুটি বড় স্কোরের স্বপ্ন দেখাতে থাকে বরিশালকে। পুরো আসরে ধারাবাহিক মাহমুদুল্লার ব্যাট এদিন যেন একটু বেশি চওড়া। অধিনায়ককে ভালোভাবেই সঙ্গ দিয়ে যান নাফিস।

মাহমুদুল্লাহ ৪৪ করে আউট হলেও নাফিস ৪৮ রানে অপরাজিত থাকেন। ৪র্থ উইকেটে এই জুটির ৮১ রানেই, লড়াই করার মতো ১৫৬ রানের স্কোর পায় বুলস। যা শিরোপাল্লাসে মাতার জন্য যথেষ্ট ছিল না।

 




Update: 2015-12-15 22:40:52, Published: 2015-12-15 22:40:53

আপনার মন্তব্য লিখুন

পাঠকের মন্তব্য ( )


More News
  


আরও সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ



সরাসরি যোগাযোগ

৮৯, বীর উত্তম সি. আর. দত্ত রোড, ঢাকা ১২০৫, বাংলাদেশ।
ফ্যাক্স: +৮৮০২ ৯৬৭০০৫৭, ইমেইল: info@somoynews.tv
উপরে en.Somoynews.tv