নির্বাচনে জয়-পরাজয়ে প্রধান নিয়ামক, দলনিরপেক্ষ ভোটার

Update: 2016-12-22 09:30:27, Published: 2016-12-22 09:30:28
vote-factor-jpg-ed


নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে শেষ মুহুর্তে ভোটের হিসাব কষছেন নগরবাসী। মেয়র পদে আওয়ামী লীগ ও বিএনপির দুই হেভিওয়েট প্রার্থীকে নিয়েই সমস্ত জল্পনা-কল্পনা। নাগরিক সমাজ বলছে, মেয়র পদে জয়-পরাজয়ে প্রধান নিয়ামক হবে দলনিরপেক্ষ প্রায় ৪০ ভাগ ভোটার।

আর ব্যবসায়ী নেতাদের দাবি, শিল্পনগরী হওয়ায় ব্যবসায়ী ও শ্রমিক ভোটাররাই মুখ্য ভূমিকা রাখবে। তবে কারো কারো মতে, নতুন ও নারী ভোটারের ওপর নির্ভর করছে কে হবেন পরবর্তী মেয়র।

একসময় পাটের বাণিজ্যের জন্য পরিচিত হলেও বর্তমানে নিট গার্মেন্টস ও হোসিয়ারি শিল্পের জন্য সুপরিচিত নারায়ণগঞ্জ। তবে ব্যবসা-বাণিজ্য ছাপিয়ে সবার চোখ এখন সিটি নির্বাচনের দিকে। কে হচ্ছেন পরবর্তী মেয়র- এমন আলোচনাই সর্বত্র।

নির্বাচনী বিধি মেনে দিন পনেরো মাঠ চষে বেড়িয়েছেন আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী সেলিনা হায়াৎ আইভী ও বিএপির অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন খান। ভোটারদের দ্বারে দ্বারে ঘুরে দিয়েছেন উন্নয়নের নানা প্রতিশ্রুতি। প্রার্থীদের সাথে নগরের অলিগলি ঘুরে বেড়িয়েছেন দুই দলের কেন্দ্রীয় নেতারাও।

আর প্রচারণা শেষে এখন চলছে জয়-পরাজয়ের হিসেব। নাগরিক সমাজের প্রতিনিধিরা বলছেন, আওয়ামী লীগ বিএনপির বাইরে থাকা দলনিরপেক্ষ ভোটাররাই নির্ধারণ করবে নগরভবনের দায়িত্ব যাচ্ছে কারহাতে।

তবে এ ব্যবসায়ী নেতা মনে করেন, নারায়ণগঞ্জের সিংহভাগ মানুষই প্রত্যক্ষ ও পরেক্ষভাবে ব্যবসার সাথে জড়িত। তাই ব্যবসায়ী ও শ্রমিক ভোটাররাই হবে প্রধান নিয়ামক।

নাগরিক সমাজের কেউ কেউ বলছেন, নারী ভোটারের পাশাপাশি এ নির্বাচনের মেয়রপদের ভাগ্য নির্ধারণ করবে ৭০ হাজার নতুন ভোটার।

নগরের অভিভাবক বাছাইয়ে শান্তিপূর্ণভাবে নিজেদের ভোটাধিকার প্রয়োগের প্রত্যাশা সাধারণ ভোটারদের।

Update: 2016-12-22 09:30:27, Published: 2016-12-22 09:30:28

আপনার মন্তব্য লিখুন

পাঠকের মন্তব্য ( )


More News
  


আরও সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ



সরাসরি যোগাযোগ

৮৯, বীর উত্তম সি. আর. দত্ত রোড, ঢাকা ১২০৫, বাংলাদেশ।
ফ্যাক্স: +৮৮০২ ৯৬৭০০৫৭, ইমেইল: info@somoynews.tv
উপরে en.Somoynews.tv