চসিক নির্বাচন মঞ্জুরের ভোট বর্জন, নতুন নগর পিতা নাছির

Update: 2015-04-29 10:54:53, Published: 2015-04-29 10:54:53
ctg-total-e

টানটান উত্তেজনার মধ্যে দিয়ে শেষ হয় চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের নির্বাচন। কেন্দ্র দখল এবং কারচুপির অভিযোগ এনে ভোট বর্জনের ঘোষণা দেয় বিএনপি। পাশাপাশি রাজনীতি থেকেও সরে দাঁড়ানোর কথা জানান বিএনপি সমর্থিত মেয়র প্রার্থী এম মঞ্জুর আলম।

আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থী আ জ ম নাছির বলেন, পরাজয় নিশ্চিত জেনেই ভোট বর্জনের ঘোষণা দিয়েছে বিএনপি। এদিকে, নির্বাচন সুষ্ঠুভাবে হয়েছে বলে দাবি রিটার্নিং অফিসারের।

মঙ্গলবার সকাল ৮টায় একযোগে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন নির্বাচনের ৭১৯টি কেন্দ্রে সুষ্ঠুভাবে ভোটগ্রহণ শুরু হয়। নির্বাচন উপলক্ষে কেন্দ্রগুলোতে নেয়া হয় কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা। বিকেল ৪টায় শেষ হয় ভোটগ্রহণ। তবে এরমাঝেই দু'একটি কেন্দ্রে বিক্ষিপ্ত ভাবে সংঘর্ষ হয়।

এদিকে, নির্বাচনে কেন্দ্র দখল এবং ভোট কারচুপির অভিযোগ এনে বেলা ১১টার দিকে, নির্বাচন বর্জনের ঘোষণা দেন বিএনপি সমর্থিত প্রার্থী এম মঞ্জুর আলম। এসময়, রাজনীতি থেকে অবসরের ঘোষণাও দেন তিনি।

এসময় এম মনজুর আলম বলেন, 'এটি তার শেষ নির্বাচন। রাজনীতি থেকেও আমি সরে দাঁড়ালাম। তবে আমার সমাজ সেবা কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে।'

আর বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল নোমান বলেন, ' ভোটাররা ভোট দিতে পারেনি। টিএন্ডটি কলোনিসহ অনেক জায়গায় বাইরে থেকে লক করে দিয়েছে, যাতে ভোটাররা ভোট দিতে না পারে। এ অবস্থায় আমরা মনে করি এই নির্বাচন কন্টিনিউ করার কোনো অর্থ হয়না।'

অন্যদিকে, নির্বাচনে পরাজয় জেনেই বিএনপি, চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন নির্বাচন বয়কট করেছে মনে করেন আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থী আ জম নাছির উদ্দিন। আর, রাজনীতি থেকে অবসরের ঘোষণা দিয়ে এম মনজুর আলম বিএনপিকেই বয়কট করেছে বলে মনে করে আওয়ামী লীগ।

আ জ ম নাছির বলেন, 'উনার নিজের লোকজনই সহযোগিতা করেনি, এটির  জন্যতো আমাকে দায়ী করে কোনো লাভ নেই। তিনি জানেন যে পরাজিত হবেন, কারণ ৭ বছর মেয়রের দায়িত্ব পালনকালে কোনো কাজ করেননি।'

আর এই বিষয়ে আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা বিষয়ক সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেন, 'মঞ্জুর সাহেব শুধু নির্বাচন বর্জন নয়, রাজনীতি বর্জন, প্রকারান্তরে বিএনপিকেও বর্জনের ঘোষণা দিয়েছেন। এ থকে বোঝা যায়, বিএনপি তাকে যেভাবে সহায়তা করার কথা ছিলো, সেটি করেনি।'

মঞ্জুর আলমের নির্বাচন বয়কটের ঘোষণার প্রতিক্রিয়ায় রিটার্নিং অফিসার আব্দুল বাতেন বলেন, নির্বাচনে প্রার্থী হওয়া এবং বয়কট করা একান্তই প্রার্থীর ব্যক্তিগত।

চট্টগ্রাম সিটি নির্বাচনে মেয়র পদে ১২জন, সাধারণ কাউন্সিলর পদে ২১৩ জন ও সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে ৬১ জন নির্বাচনী লড়াইয়ে অংশ নেন।

Update: 2015-04-29 10:54:53, Published: 2015-04-29 10:54:53

আপনার মন্তব্য লিখুন

পাঠকের মন্তব্য ( )


More News
  


আরও সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ



Contact Address

89, Bir Uttam CR Dutta Road, Dhaka 1205, Bangladesh.
Fax: +8802 9670057, Email: info@somoynews.tv
উপরে en.Somoynews.tv