bpl bpl
বিপিএল দল সূচি ফলাফল পয়েন্ট টেবিল খবর ছবি ভিডিও

জয়ের ধারায় ফিরলো ঢাকা ডায়নামাইটস

dhaka

এক ম্যাচ পর আবারো জয়ের ধারায় ফিরেছে ঢাকা ডায়নামাইটস। স্বাগতিক সিলেট সিক্সার্সকে তারা হারিয়েছে ৬ উইকেটে। টস জিতে আগে ব্যাট করে ৮ উইকেটে ১৫৮ রান করে ডেভিড ওয়ার্নারের দল। জবাবে অধিনায়ক সাকিবের অনবদ্য ফিফটিতে ৪ উইকেট হারিয়ে লক্ষ্যে পৌঁছে যায় ডায়নামাইটস। এ নিয়ে ৬ ম্যাচের ৫টিতেই জয় পেয়ে শীর্ষে নিজেদের অবস্থান আরো শক্ত করলো ঢাকা।

সাকিবের অনেক পরিবর্তনের মাঝে একটি লক্ষ্য করা গেলো আজ। সেঞ্চুরি কিংবা ডাবল সেঞ্চুরির পরও যেটি করেননি এবার ফিফটি তুলে সেই উদযাপন করলেন সাকিব।

চলতি আসরের ব্যাটের রানখরা ঘুচিয়েছেন। আগের ম্যাচে হোঁচট খাওয়া দলটাকে আবারো এনেছেন জয়ের বৃত্তে, এবার ব্যাটে-বলে একেবারে সামনে থেকে। শেষ পর্যন্ত খেলে জয় নিয়ে তবেই ফিরেছেন।

এদিন সবকিছুই গেছে সাকিবের পক্ষে। লিটনের ঝোড়ো শুরু আর সাব্বিরের ধীরস্থির ব্যাটিংয়ে দারুণ পরিণত জুটিটা ৩৮ রানে থামিয়ে দেন সাকিব। লিটনের বিরুদ্ধে আবেদনে আম্পায়ারের না'তে তাৎক্ষণিক রিভিউ নিয়ে সেটিকে আউটে পরিণত করেন সাকিব।

পরের ওভারেই ফিরেছেন সাব্বির। আফিফ, অলক কাপালী কিংবা ইনফর্ম নিকোলাস পুরান উইকেট ছেড়ে সাজঘরে ফিরেছেন দ্রুতই।

৮৯ রানেই ৫ উইকেট হারিয়ে সিলেট ধুঁকছিল। তবে দৃঢ়প্রতিজ্ঞ ওয়ার্নার উইকেটে টিকে গেছেন। ইনজুরি নিয়েও উইকেটে প্রতিটি রানের জন্য সংগ্রাম করেছেন। জাকের আলীর সঙ্গ পেয়ে শেষদিকে তেড়েফুঁড়ে ব্যাট চালালেন। আসরে তৃতীয় পাবার পর তার ৬৩ রানের ইনিংসটা থামিয়েছেন সেই সাকিব আল হাসান। ১৫৮ রানে থেমেছে সিলেট সিক্সার্স।

সিলেটের ব্যাটিং স্বর্গ উইকেটে এই রান হয়তো যথেষ্ট ছিলো না। কিন্তু শুরুতে কিছুটা হলেও সম্ভাবনা জাগান সিলেটের বোলাররা। ৩৭ রানে নারাইন, মিজানুর আর রনি তালুকদারকে ফিরিয়ে দেন তাসকিন-ইরফানরা।

তবে উদ্ধারকর্তা সাকিব আল হাসান ছিলেন। উইকেটের চারপাশে দৃষ্টিনন্দন সব শট খেলেছেন। ৪১ বলে ৬১ রানের দারুণ ইনিংসে আগলে রেখেছেন দলকে। সেই ইনিংসটার মহিমা ফুটিয়ে তুলেছেন আন্দ্রে রাসেল।

নয়নাভিরাম সিলেটে নজরকাড়া শটে বল পাঠিয়েছেন সীমানার বাইরে। ২১ বলে ৪০ রানের টর্নেডো ইনিংসে ঝেড়ে ফেলেছেন আগের ম্যাচের সব হতাশাও।